এই গোলটিতেই রোনালদো ছুঁয়েছেন মাইলফলক।
এই গোলটিতেই রোনালদো ছুঁয়েছেন মাইলফলক।ছবি: রয়টার্স

ছেলেদের ফুটবলে নারী রেফারি এর আগেও দেখা গেছে। কিন্তু চ্যাম্পিয়নস লিগে? সেই ইতিহাস কাল গড়েছেন স্তেফানি ফ্রাপার।

৩৬ বছর বয়সী এই নারী রেফারি কাল রাতে জুভেন্টাস ও দিনামো কিয়েভের ম্যাচটি বেশ সফলভাবেই পরিচালনা করেছেন। আর ফ্রাপারের এমন ইতিহাসের অংশ হওয়ার রাতটা রঙিন করেছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। ক্যারিয়ারের ৭৫০তম গোল করেছেন জুভেন্টাসের পর্তুগিজ ফরোয়ার্ড। রোনালদোর গোলে জুভেন্টাস শেষ পর্যন্ত ৩-০ ব্যবধানে হারিয়েছে দিনামো কিয়েভকে।

এই জয়ে ৫ ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপে দ্বিতীয় স্থানে আছে জুভেন্টাস। ৫ ম্যাচের সবকটিই জিতে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে বার্সেলোনা।

বিজ্ঞাপন

ছেলেদের ফুটবল ম্যাচ পরিচালনা করে আগেই ইতিহাসের অংশ হয়েছেন নারী রেফারি স্তেফানি ফ্রাপার। প্রথম নারী হিসেবে ছেলেদের ইউরোপিয়ান ফুটবলের ম্যাচ পরিচালনা করেছিলেন ফ্রাপার গত বছর। সেবার ২০১৯ উয়েফা সুপার কাপের ফাইনালে লিভারপুল-চেলসি খেলেছিল তাঁর পরিচালনায়। প্রথম নারী রেফারি হিসেবে ফরাসি লিগের ম্যাচও পরিচালনা করেছেন ফ্রাপার। গত বছরের এপ্রিলে আমিয়ঁ বনাম স্ত্রাসবুর্গ ম্যাচটি পরিচালনা করেছেন।

default-image

ইউরোপা লিগে ফ্রাপারের অভিষেক হয়েছিল লেস্টার সিটি বনাম জোরিয়া লুহানস্ক ম্যাচের মধ্য দিয়ে। এর আগে অন্য কোনো মেয়ে রেফারি ইউরোপার ম্যাচ পরিচালনার দায়িত্ব পাননি। গতকাল আরেকটি মাইলফলক ছুঁয়েছেন ফ্রাপার। প্রথম নারী হিসেবে পরিচালনা করেছেন ছেলেদের চ্যাম্পিয়নস লিগের ম্যাচ।

এই ম্যাচের পর ফ্রাপার সম্পর্কে উচ্ছ্বসিত ছিলেন জুভেন্টাসের প্রধান ফুটবল কর্মকর্তা ফাবিও পারাতিসি, ‘সে এবার আরেকটি মাইলফলক ভেঙেছে। আমরা জানি সে ম্যাচ পরিচালনায় খুব দক্ষ, যেটা ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ ও জরুরি।’

ফ্রাপারের রেকর্ড বইয়ে উঠে যাওয়ার ম্যাচে অবশ্য খুব বেশি চাওয়া পাওয়া ছিল না রোনালদোদের। এই গ্রুপ থেকে পরের রাউন্ডে কে উঠবে না উঠবে, সেটা নিশ্চিত হয়ে গেছে আগেই। বার্সেলোনা ও জুভেন্টাসের মধ্যে গ্রুপ সেরা হয়ে কে উঠবে আর দ্বিতীয় হবে কে, সেটি ঠিক হবে আগামী মঙ্গলবার বার্সার মাঠে দুই দলের ম্যাচে।

ম্যাচের পর জুভেন্টাস কোচ আন্দ্রেয়া পিরলো বলেছেন, ‘আমরা বার্সেলোনার সঙ্গে খেলার জন্য প্রস্তুত। এই ম্যাচগুলো আমাদের আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দেয় এবং আমরা সেখানে জেতার জন্যই যাব। কিন্তু প্রথমে আমাদের লিগের ডার্বির (তুরিন) দিকে নজর দিতে হবে।’

পিরলো অবশ্য ছেলেদের কালকের খেলা নিয়ে বেশ সন্তুষ্ট, ‘যেভাবে ছেলেরা খেলেছে, তাতে আমি এই ম্যাচ নিয়ে সন্তুষ্ট। আমি নিজেও কোচ হিসেবে তরুণ। আমি জানি, আমার খেলোয়াড়দের মতো আমারও উন্নতি করতে হবে। তবে আমিও ঠিকই আমার কাজটা চালিয়ে যাব।’

বিজ্ঞাপন

এর আগে গত ২০ অক্টোবর ইউক্রেনের এই দলকে জুভেন্টাস হারিয়েছিল ২-০ গোলের ব্যবধানে। কালকের স্কোরলাইন যদিও ৩-০ বলছে, কিন্তু ম্যাচে জিততে বেশ কাঠখড় পোড়াতে হয়েছে জুভেন্টাসকে। ম্যাচের ২১ মিনিটে ফেদেরিকো কিয়েসা গোলের খাতা খোলেন। ম্যাচের ১৭ মিনিটে অবশ্য জুভেন্টাসের ওয়েস্টন ম্যাককেনি দারুণ এক হেড করেন, কিন্তু চমৎকার দক্ষতায় সে যাত্রায় গোল বাঁচিয়ে দেন কিয়েভের গোলরক্ষক জিওর্গি বুশান।

কিন্তু এর ৫ মিনিট পরই আলেক্স সান্দ্রোর ক্রসে দারুণ এক হেডে ফিওরেন্তিনার সাবেক মিডফিল্ডার কিয়েসা করেন ১-০। দুই মাস আগে জুভেন্টাসে যোগ দেওয়া মিডফিল্ডারের এটাই ছিল জুভেন্টাসের জার্সিতে প্রথম গোল।

এরপর ৫৭ মিনিটে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো করেন নিজের ক্যারিয়ারের ৭৫০ তম গোল। এর ১০ শতাংশই এসেছে জুভেন্টাসের জার্সিতে। অথচ ইতালিয়ান ক্লাবটিতে রোনালদো এসেছেন মাত্র আড়াই বছরের মতো হলো! আর চ্যাম্পিয়নস লিগে এটা রোনালদোর ১৩২তম গোল। আলভারো মোরাতা ৬৬ মিনিটে কিয়েভের কফিনে ঠুকেছেন শেষ পেরেক।

মন্তব্য করুন