সংবাদমাধ্যম ‘সোসিয়েলিতে’ জানিয়েছে, সুইডেনের রাজধানী স্টকহোমে ব্যবসায়িক কারণে গিয়েছিলেন পিকে। সেখানে এক পার্টিতে ফ্যাশন, সংগীত ও সিনেমাজগতের নামীদামি অনেকে গিয়েছিলেন। অনুষ্ঠানটির নাম ‘ব্রিলিয়ান্ট মাইন্ডস’। বিশ্বের নানা প্রান্তের বিভিন্ন জগতের অনেকেই এ আয়োজনে অংশ নেন।

পিকেকে সেখানে নিয়ে যান সুইডিশ অডিও স্ট্রিমিং প্রতিষ্ঠান ‘স্পটিফাই’-এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড্যানিয়েল একে। কিছুদিন আগে বার্সার সঙ্গে স্পনসরশিপ চুক্তি করেছে স্পটিফাই।

default-image

সুইডিশ ব্যবসায়ী, ব্লগার ও টিভি উপস্থাপিকা ক্যাটরিন জায়তোমিরেস্কা পার্টিতে পিকের সঙ্গে স্বর্ণকেশী এক নারীর সময় কাটানোর কথা জানিয়েছেন সংবাদমাধ্যমকে। ‘সোসিয়েলিতে’কে জায়তোমিরেস্কা বলেছেন, ‘আর সবার মতো পিকেও একটি কালো হুডি পরে ছিলেন। পার্টিটা বিশেষ কিছু ছিল।’

পিকের সঙ্গে সেই নারীর বসে থাকার ছবিটা জায়তোমিরেস্কাই তুলেছেন। পরে তা ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ছবিতে দেখা যায়, ৩৫ বছর বয়সী পিকের সঙ্গে সাদা হ্যাট পরে এক নারী বসে আছেন। তবে এই নারীর পরিচয় জানাতে পারেনি সংবাদমাধ্যম।

জায়তোমিরেস্কা জানিয়েছেন, এই পার্টিতে গায়িকা আলিসিয়া কিজ, অভিনেতা এডয়ার্ড নরটন ও সুপারমডেল নাওমি ক্যাম্পবেলের সঙ্গে দেখা করেন পিকে। কিছুক্ষণ সময়ও কাটান তাঁদের সঙ্গে। এ পার্টিতে মুঠোফোন নিয়ে যাওয়ার অনুমতি ছিল। তাই ছবি তুলতে অসুবিধা হয়নি জায়তোমিরেস্কার। পার্টিতে তিনি নিজের সন্তানকে পিকের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু পিকে রাজি না হওয়ায় তাঁর ওপর ক্ষোভ ঝেড়েছেন এই হোটেল ব্যবসায়ী।

ইনস্টাগ্রামে জায়তোমিরেস্কা লিখেছেন, ‘তোমাকে দেখে আমার ছেলের কথা মনে হয়েছিল। পরিষ্কার করে বলেছিলাম, আমার ছেলেকে হ্যালো বলো। তুমি “না” বলেছ। তুমি নিজেকে কী মনে করো? একজন লোক যে বল ড্রিবলিং করতে পারে। এটা আমাকে তেমন প্রভাবিত করে না। আলোচনায় আসার লোভটা তোমার মাথায় ঢুকে গেছে, এ বিষয়টি আমাকে কষ্ট দেয়, যা দুঃখজনক। তুমি কিন্তু তেমন কেউ নও, সামান্য একজন ফুটবল খেলোয়াড়। কর্মফল কী জিনিস, তা মনে রেখো।’

default-image

কাতালান সংবাদকর্মী লরেনা ভাসকেজ ও লরা ফা-কে জায়তোমিরেস্কা বলেছেন, ‘তাকে বলেছিলাম আমার ছেলেকে হ্যালো বলো। সে “না” বলেছে। তাকে দুবার অনুরোধ করেছি কিন্তু একই উত্তর দিয়েছে। সে রূঢ় আচরণ করেনি, তবে অহংকার দেখিয়েছে।’

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন