নেইমারকে আটকানোর সাধ্য ছিল না কারওর।
নেইমারকে আটকানোর সাধ্য ছিল না কারওর। ছবি : রয়টার্স

সব খেলোয়াড়েরই একটা করে প্রিয় প্রতিপক্ষ থাকে। লিওনেল মেসি যেমন, বার্সেলোনার হয়ে সবচেয়ে বেশি গোল করেছেন সেভিয়ার বিপক্ষে। রোনালদোরও তাই। পর্তুগিজ তারকার প্রিয় শিকারও সেভিয়া। নেইমারও ফরাসি লিগে নিজের প্রিয় ‘শিকার’ পেয়ে গেছেন। দুর্ভাগা সেই দলটার নাম দিজোঁ। গত রাতে এ দলের বিপক্ষেই লিগের ম্যাচ খেলতে নেমেছিল পিএসজি। ‘প্রিয়’ প্রতিপক্ষকে পেয়েই ঝলসে উঠেছেন নেইমার। নেইমারের দেখাদেখি আলো ছড়িয়েছেন কিলিয়ান এমবাপ্পে ও দলে নতুন আসা স্ট্রাইকার মইসে কিন-ও। সব মিলিয়ে ৪-০ গোলের হার জুটেছে দিজোঁর ভাগ্যে।

default-image

না, নেইমার কোনো গোল করেননি। কিন্তু শুধুমাত্র গোলের সংখ্যা দিয়েই কী একটা ফুটবলারের পারফরম্যান্স বোঝানো যায়? আর সেটারই আদর্শ উদাহরণ হয়ে রইল গত রাতের এই ম্যাচ। গোল না পেলেও দুটি গোল বানিয়ে দিয়েছেন এই ব্রাজিল তারকা। এই নিয়ে ‘প্রিয় শিকার’ দিজোঁর বিপক্ষে চার গোল আর চার অ্যাসিস্ট হয়ে গেল নেইমারের। শুধু তাই নয়, এই কয় বছরে দিজোঁর বিপক্ষে সব মিলিয়ে আট বার গোলের পরিষ্কার সুযোগ সৃষ্টি করেছেন, নিজে গোলমুখে শট নিয়েছেন সাত বার। ফরাসি লিগে আর অন্য কোনো দলের বিপক্ষে এমন ভালো রেকর্ড নেই নেইমারের।

default-image
বিজ্ঞাপন

ম্যাচের মূল একাদশে নেইমার থাকলেও, এমবাপ্পে ছিলেন না। এমবাপ্পের জায়গায় দলে নতুন আসা স্ট্রাইকার মইসে কিনকে খেলিয়েছেন কোচ টমাস টুখেল। ম্যাচের তিন মিনিটেই এগিয়ে যায় পিএসজি। ডাচ লেফটব্যাক মিচেল বাকারের ক্রসে পা ছুঁইয়ে দলকে এগিয়ে দেন কিন। তবে নেইমার নিজেকে দুর্ভাগা ভাবতেই পারেন। সাত মিনিটে স্প্যানিশ উইঙ্গার সারাবিয়ার ক্রসে নেইমার ঠিকঠাক মাথা লাগালেও তা পোস্টে লেগে বল ফিরে আসে। ২৩ মিনিটে দিজোঁর পুরো রক্ষণভাগকে ছিন্ন ভিন্ন করে ডি-বক্সে ঢুকে কিনের উদ্দেশ্যে বল বাড়ান নেইমার। কিনের কাজ ছিল, শুধু বলে ঠিকঠাক পা টা লাগানো। সেটা তিনি করেছেন।

দ্বিতীয়ার্ধে কিনের জায়গায় নামেন এমবাপ্পে। কিনের মতো জোড়া গোল করেন এমবাপ্পেও, তবে সময় নেন মাত্র ১৭ মিনিট। ৮১ মিনিটে বাঁ পায়ের দুর্দান্ত মাটিঘেঁষা এক শটে দলকে ৩-০ ব্যবধানে এগিয়ে দেন এই ফরাসি স্ট্রাইকার। ৮৮ মিনিটে নেইমারের সঙ্গে দারুণভাবে বল আদান-প্রদান করে স্কোরলাইনকে ৪-০ করে দেন ফরাসি তারকা।

আগামী বুধবার ইস্তাম্বুল বাশেকশেহিরের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলতে নামবে পিএসজি। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বিপক্ষে হেরে মৌসুম শুরু করা পিএসজি সমর্থকেরা ওই ম্যাচের আগে নেইমারের এমন দুর্দান্ত ফর্মে খুশিই হবেন!

মন্তব্য পড়ুন 0