ছবিতে নেইমারের পেছনে ফ্যাব্রিগাস থাকলেও মাঠের লড়াইয়ে ফ্যাব্রিগাসই জিতেছেন
ছবিতে নেইমারের পেছনে ফ্যাব্রিগাস থাকলেও মাঠের লড়াইয়ে ফ্যাব্রিগাসই জিতেছেন ছবি: রয়টার্স

সেস ফ্যাব্রেগাস মোনাকোতে কেন গিয়েছিলেন? বিশ্বকাপজয়ী সাবেক এই আর্সেনাল ও বার্সেলোনা তারকা চেলসি ছেড়ে যখন মোনাকোতে গেলেন, প্রশ্নটা উঠেছিল। প্রশ্নের উত্তর যে একটা ছিল, তা নয়।

সবচেয়ে বড় কারণ ছিল বয়স, যে বয়সের কারণে এনগোলো কান্তে, জর্জিনিও কিংবা মাতেও কোভাচিচের মতো মিডফিল্ডারদের দলের জন্য ফ্যাব্রেগাসের চেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ মনে করেছিল চেলসি। কিন্তু ‘বুড়ো’ হয়ে গেলেও ফ্যাব্রেগাসের ফুটবলীয় ক্ষমতায় যে বিশেষ মরচে পড়েনি, সেটা গত রাতে আরেকবার সবাইকে মনে করিয়ে দিলেন এই স্প্যানিশ তারকা।

আর ফ্যাব্রেগাসের বুড়ো হাড়ের ভেলকি মাঠে থেকে চোখের সামনে দেখলেন নেইমার, এমবাপ্পেরা। ফ্যাব্রেগাসের জাদুতে গত রাতে হেরে বসেছে পিএসজি।

বিজ্ঞাপন
default-image

অথচ শুরুর দিকে পিএসজির দুর্দান্ত ফর্মের সামনে পাত্তাই পাচ্ছিল না মোনাকো। ৩৭ মিনিটের মধ্যেই কিলিয়ান এমবাপ্পের জাদুতে ২-০ গোলে এগিয়ে যায় পিএসজি। প্রথম গোলটা তো ছিল গতির দুর্দান্ত প্রদর্শনী।

ফরাসি সেন্টারব্যাক অ্যাক্সেল দিসাসিকে গতির খেলায় হারিয়ে ডান পায়ের নিখুঁত ফিনিশিংয়ে দলকে এগিয়ে দেন এমবাপ্পে। ৩৭ মিনিটে মোনাকোর লেফটব্যাক ফোদে বালো তোরে পিএসজির রাফিনহা আলকানতারাকে ডি-বক্সে ফেলে দিলে পেনাল্টি পায় ফরাসি চ্যাম্পিয়নরা।

এমবাপ্পের বিদ্যুৎগতির শট আটকানোর সাধ্য ছিল না মোনাকো গোলরক্ষক ভিতো মানোনের। প্রথমার্ধে ইতালিয়ান স্ট্রাইকার মইস কিন ও এমবাপ্পে আরও দুবার বল জালে জড়ালেও লাভ হয়নি, অফসাইডের খাঁড়ায় পড়ে বাতিল হয়েছে সেই দুই গোল।

দ্বিতীয়ার্ধে মোনাকোর হয়ে মাঠে নামেন ফ্যাব্রেগাস। আর নেমেই নিজের জাত চেনানো শুরু করেন। ফ্যাব্রেগাসকে পেয়ে মোনাকো যেন নতুন সঞ্জীবনী শক্তি খুঁজে পায়।

ফ্যাব্রেগাস ছাড়াও আরেক অভিজ্ঞ তারকা ঝলক দেখিয়েছেন এ রাতে। তিনি জার্মান স্ট্রাইকার কেভিন ভলান্ড। অনেক দিন ধরেই তাঁকে মিরোস্লাভ ক্লোসার উত্তরসূরি হিসেবে ভাবা হলেও জাতীয় দল বা ক্লাব ক্যারিয়ারে তেমন কিছুই করতে পারেননি, এখন তাঁর ঠাঁই হয়েছে মোনাকোয়।

সেখানেই ফ্যাব্রেগাসকে পাশে পেয়ে ঝলসে উঠলেন তিনিও। করলেন দুই গোল। শেষের পেনাল্টিটাও তিনিই জোগাড় করে দিলেন, ৮৩ মিনিটে যে পেনাল্টি থেকে গোল করে দলকে জিতিয়েই মাঠ ছেড়েছেন ফ্যাব্রেগাস।

বিজ্ঞাপন
default-image

চোট থেকে এই ম্যাচ দিয়েই ফিরেছেন পিএসজির ব্রাজিল তারকা নেইমার। দলকে জাগিয়ে তোলার চেষ্টা করেছেন প্রাণপণে, লাভ হয়নি। মোনাকোই পূর্ণ তিন পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছেড়েছে।

হারের মধ্যেও পিএসজি–ভক্তরা সুসংবাদ পেয়েছেন কোচের কাছ থেকে। কোচ টমাস টুখেল জানিয়েছেন, এই ম্যাচে বেঞ্চ থেকে নামলেও আগামী মঙ্গলবার লাইপজিগের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়নস লিগের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে প্রথম থেকেই খেলবেন নেইমার, থাকবেন মূল একাদশে।

মন্তব্য পড়ুন 0