জানুয়ারিতেও পছন্দের খেলোয়াড় পাবেন না কোমান?
জানুয়ারিতেও পছন্দের খেলোয়াড় পাবেন না কোমান? ফাইল ছবি: এএফপি

অ্যাথলেটিক বিলবাওর বিপক্ষে কাল দারুণ খেলেছে বার্সেলোনা। প্রতিপক্ষের মাঠে ৩-২ গোলে জয় পেয়েছেই বলেই নয়, কাল মেসির সঙ্গে দুর্দান্ত রসায়ন দেখিয়েছেন ১৮ বছর বয়সী পেদ্রি। ক্লাবে সদ্য যোগ দেওয়া এই তরুণের সঙ্গে ক্লাবের ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়ের বোঝাপড়া দিন দিন ভালো হচ্ছে। মৌসুম যত এগোবে, ততই এ জুটি আরও দুর্দান্ত হবে বলেই মনে হচ্ছে। তবু রোনাল্ড কোমান হয়তো আজ দিনটা হাসিমুখে শুরু করতে পারছেন না।

গতকালই বার্সেলোনার মতোই ৩-২ ব্যবধানে জয় পেয়েছে ফ্রেঞ্চ লিগের ক্লাব লিওঁ। মিল আছে আরও এক ব্যাপারে, মেসির মতোই লিওঁর মূল গোলভরসা পেয়েছেন জোড়া গোল। বার্সেলোনার কোচ হওয়ার পর থেকেই মেম্ফিস ডিপাইকে স্পেনে আনার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন কোমান। জানুয়ারিতে আরও ভালোভাবেই সে চেষ্টা চালানোর ইচ্ছা তাঁর। কিন্তু ডিপাই কাল ইঙ্গিত দিয়েছেন, কোমানের অধীনে এখনই যাওয়ার ইচ্ছা নেই তাঁর।

default-image
বিজ্ঞাপন

লুইস সুয়ারেজের বিদায়ের পর বার্সেলোনা কোনো স্ট্রাইকারকে কিনতে পারেনি গ্রীষ্মের দলবদলের বাজারে। লাওতারো মার্তিনেজকে কিনতে হলে অনেক অর্থের প্রয়োজন। আপাতত বড় দলবদল সম্ভব নয় বার্সেলোনার পক্ষে। ওদিকে কোমানের নিজের পছন্দের স্ট্রাইকারকেই আনতে চেয়েছিলেন ক্লাবে। নেদারল্যান্ডস জাতীয় দলের দায়িত্বে থাকা অবস্থায় মূল স্ট্রাইকার হিসেবে দুর্দান্ত খেলেছেন ডিপাই। তাই কাতালান ক্লাবের দায়িত্ব পেয়েই নিজের প্রিয় ছাত্রকে টেনে নিতে চেয়েছিলেন। কথাবার্তা প্রায় পাকা হওয়ার পরও শেষ মুহূর্তে দলবদল হয়নি।

কোমান তবু আশা ছাড়েননি। দলবদলের সময় শেষ হওয়ার পরও বেশ কয়েকবার ডিপাইকে বার্সেলোনায় ডেকে আনার কথা বলেছিলেন। এভাবে নিজের খেলোয়াড়কে ডাকাডাকি করায় ক্ষোভ জানিয়েছেন লিওঁ কোচ রুডি গার্সিয়া। তাতে বয়েই গেছে কোমানের। জানুয়ারির দলবদল শুরু হতেই আবার শুরু করেছেন ডাকাডাকি। বিলবাও ম্যাচের আগেও বলেছেন, তাঁর একজন সত্যিকারের স্ট্রাইকার দরকার। মেসি, দেম্বেলেদের সামনে খেলার মতো একজন দরকার তাঁর।

গতকালই দুই গোল করে ডিপাই জানিয়েছেন, কেন তাঁকে এত করে চাইছেন কোমান। আর চুক্তির মাত্র ছয় মাস বাকি তাঁর। এখনই বার্সেলোনায় যাওয়ার জন্য দর-কষাকষির শ্রেষ্ঠ সময়। কিন্তু ডিপাই কোমানকে আপাতত হতাশ করছেন। পিএসজিকে টপকে এখন লিগে শীর্ষে আছে লিওঁ। তাই আপাতত বর্তমান দল নিয়েই স্বপ্ন দেখছেন ডিপাই, ‘আমি এখানেই সুখী। দারুণ একটা দল আছে আমাদের। আমি ক্লাবের সভাপতিকে দারুণ পছন্দ করি। দেখি না কী হয়।’

default-image

এ মৌসুমে লিগে ১০ গোল করে ফেলেছেন ডিপাই। সতীর্থদের দিয়ে করিয়েছেন আরও ৪ গোল। ফ্রেঞ্চ লিগে ডিপাইয়ের চেয়ে বেশি গোলের সঙ্গে জড়িত শুধু কিলিয়ান এমবাপ্পে (১৬)। তবে গোলের সুযোগ সৃষ্টিতে ডিপাইয়ের কাছে নেই কেউ। দলের জন্য ৪২ বার গোলের সুযোগ সৃষ্টি করেছেন ডাচ ফরোয়ার্ড। কোমানের আক্রমণভাগে এমনই একজনকে দরকার। কিন্তু ডিপাই আপাতত এ মৌসুমে লিওঁর হয়ে কিছু জিততে চান, ‘ক্লাব সভাপতি ও আমি জানি গত চার মৌসুম কী হয়েছে। যত দিন ক্লাবে আছি, সেটাই উপভোগ করুন না। আমি হয়তো মৌসুমের শেষ পর্যন্ত এখানেই থাকব। শনিবারের ম্যাচে মনোযোগ দেওয়া যাক। চলুন খুশি থাকি সবাই, আমাদের একটা দারুণ দল আছে।’

বহু আশা নিয়ে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দিয়ে সেখানে আলো ছড়াতে ব্যর্থ হয়েছিলেন ডিপাই। পরে ২০১৭ সালে লিওঁতে যোগ দিয়েছেন। ফ্রেঞ্চ ক্লাবেই তাঁর সেরা ফর্ম দেখা গেছে। লিওঁর হয়ে ১৫৫ ম্যাচে ৬৪ গোল করা ডিপাইকে জানুয়ারিতে কোনোভাবেই ছাড়তে রাজি নন কোচ গার্সিয়া।

বিজ্ঞাপন
ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন