বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

আজ ফাইনালে ওঠার কাজটা যে মোটেও সহজ হবে না, জার্মান মিডফিল্ডার তা জানেন। বার্সার সেই আগের দিন না থাকলেও লড়াইটা চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীদের বিপক্ষে বলেই তিল পরিমাণ ছাড় পাবে না রিয়াল।


বার্সার আগের সেই তারকার হাট আর নেই। লুইস সুয়ারেজ, মেসি, গ্রিজমানরা চলে যাওয়ায় ভাঙা হাট হয়ে গেছে কাতালান ক্লাবটি। জাভি হার্নান্দেজ এসে এই ভাঙা হাটকে মেরামত করার চেষ্টা করছেন। সংবাদ সম্মেলনে ক্রুসের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল, রোনাল্ড কোমানের বার্সা এবং জাভির বার্সার মধ্যে কেমন পার্থক্য দেখেন? কোমান কোচ থাকতে বার্সা ছেড়েছেন মেসি–সুয়ারেজরা।

default-image

ক্রুস এর উত্তরে সরল স্বীকারোক্তি দিলেও তার মধ্যে লুকোনো খোঁচাটা ঠিকই ধরতে পারবেন বার্সা সমর্থকেরা, ‘সাম্প্রতিককালে বার্সার খেলা দেখা হয়নি। আমার অন্য কাজ আছে। নিজেদের খেলাও দেখতে হয়। কিন্তু তাদের ভালোভাবেই জানি। কিছু সমস্যা থাকলেও সব মিলিয়ে তাদের দলে উচুঁমানের কিছু খেলোয়াড় আছে। তাই জাভির অধীনে দলটা কেমন পাল্টেছে তা বলতে পারছি না।’


খেলার ধরন নিয়েও কথা বললেন ক্রুস। মিডফিল্ডাররা এমনিতেই বল দখলে রাখতে চান। ক্রুসের খেলার মধ্যেও সে বৈশিষ্ট্য দেখা যায় এবং পায়ে একটু বেশি সময় রেখে নিখুঁত পাস দিতে পছন্দ করেন গত বছর জাতীয় দল থেকে অবসর নেওয়া এ খেলোয়াড়। ক্রুস জানালেন, বল দখলে রেখে খেলতেই তাঁর বেশি পছন্দ, ‘আমি বল দখলে রাখতে পছন্দ করি, এটা আমাকে যারা চেনেন তারা জানেন। তবে দলের প্রয়োজনে নানা কৌশলে খেলতে হয়। ৯০ শতাংশ সময় বল দখলে রেখে ১–০ ব্যবধানে জিততে পছন্দ করি। গতি বাড়িয়েও খেলতে হয়। এটাও খেলা নিয়ন্ত্রণের একটা কৌশল। তবে আমি বল দখলে রেখে খেলতেই বেশি পছন্দ করি।’

রিয়ালের সঙ্গে এ নিয়ে আট মৌসুম খেলছেন ক্রুস। ৩২ বছর বয়সী এ মিডফিল্ডারের সঙ্গে ক্লাবটির চুক্তির মেয়াদ ফুরোবে ২০২৩ সালে। ক্রুস জানালেন, আগামী মৌসুমের পরও রিয়ালের সঙ্গে তিনি চুক্তি নবায়নে আগ্রহী। অবসর নিতে চান মাদ্রিদের ক্লাবটিতেই, ‘চুক্তির মেয়াদ ফুরোনোর সময় আমার বয়স হবে ৩৩ বছর। তখন ভাবতে হবে সামনে কী আছে। তবে আমি সব সময়ই বলেছি, রিয়ালেই অবসর নিতে চাই।’

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন