বার্সেলোনায় ক্রুইফের মতো মেসির মূর্তিও চান বার্তোমেউর প্রতিদ্বন্দ্বী

বার্সেলোনার অনুশীলনে লিওনেল মেসি।
বার্সেলোনার অনুশীলনে লিওনেল মেসি। ছবি: রয়টার্স
বিজ্ঞাপন

চিরকাল তো আর লিওনেল মেসি ফুটবল খেলবেন না। অথবা পুরো ক্যারিয়ার হয়তো বার্সেলোনাতেও কাটাবেন না। এ মৌসুমেই তো আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড ন্যু ক্যাম্প ছাড়তে চেয়েছিলেন। একদিন হয়তো ঠিকই বার্সা ছেড়ে যাবেন তিনি। তবে মেসির বার্সা ছাড়ার আগে ন্যু ক্যাম্পের বাইরে কিংবদন্তি ইয়োহান ক্রুইফের পাশে তাঁরও একটি মূর্তি হওয়া উচিত বলে মনে করেন ক্লাবের নির্বাচনে সভাপতি পদে প্রার্থিতার আশা করা লুইস ফার্নান্দেজ।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

আর্জেন্টিনার ক্লাব নিউয়েলস বয়েজ থেকে ২০০১ সালে নাম লেখান বার্সেলোনার যুব দলে। ২০০৪ সালে অভিষেক কাতালান ক্লাবটির মূল দলে। ন্যু ক্যাম্পে তাঁর কেটে গেছে ১৯টি বসন্ত। কাতালান ক্লাবটিতে ১০টি লা লিগা ও চারটি চ্যাম্পিয়নস লিগসহ জিতেছেন প্রায় তিন ডজন শিরোপা। ব্যক্তিগত অর্জনের ডালিটাও তাঁর কানায় কানায় পূর্ণ। জিতেছেন ছয়টি ব্যালন ডি’অর।

মেসি রজার ফেদেরারের মতো। আশা করছি সে বার্সেলোনায় আরও অনেক বছর খেলবে।
লুইস ফার্নান্দেজ, বার্সেলোনা সভাপতি পদপ্রার্থী

কিন্তু সদ্য শেষ হওয়া মৌসুমে কিছুই জেতা হয়নি তাঁর। এর ওপর বার্সেলোনার সভাপতি জোসেপ মারিয়া বার্তোমেউ আর বোর্ডের একাংশের সঙ্গে ঝামেলার কারণে ক্লাবই ছাড়তে চেয়েছিলেন মেসি। পরে অবশ্য সিদ্ধান্ত বদলে আরেকটা মৌসুম বার্সেলোনায় থাকার কথা বলেছেন আর্জেন্টাইন তারকা।

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সম্প্রতি ফুটবল বিষয়ক ওয়েবসাইট গোলডটকমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে অবশ্য আগামী মার্চে ক্লাবের নির্বাচনে সভাপতি পদপ্রার্থী ফার্নান্দেজ আশাবাদী মেসি ন্যু ক্যাম্পে আরও অনেক দিন থাকবেন। ফার্নান্দেজ বলেছেন, ‘আমরা তার আশপাশের মানুষদের সঙ্গে কথা বলেছি। আমরা তাকে বিষয়টি নিয়ে আবার ভেবে দেখতে অনুরোধ করেছি। সে যে বার্সেলোনায় থেকে গেছে এটা খুব ভালো খবর।’

শেষ পর্যন্ত মেসি যদি নাই থাকেন তাহলে কী হবে? এই প্রশ্নের উত্তরে ফার্নান্দেজ বলেছেন, ‘মেসি রজার ফেদেরারের মতো। আশা করছি সে বার্সেলোনায় আরও অনেক বছর খেলবে। এপ্রিলে নতুন একজন সভাপতি আসবে। সেই সভাপতি হয়তো তাকে নতুন একটি প্রকল্পের স্বপ্ন দেখাবে। এরপরও যদি সে এখান থেকে চলে যেতে চায় তাহলে অবশ্যই লাজলো কুবালা ও ইয়োহান ক্রুইফের মূর্তির পাশে তার একটি মূর্তি গড়া উচিত আমাদের।’

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

ফার্নান্দেজকে ধরে নিতে বলা হয়েছিল বার্সেলোনার নির্বাচনে তিনিই জয়ী হবেন। সেই সময় মেসি যদি তাঁর কাছে এসে ক্লাব ছাড়ার কথা বলেন তাহলে তিনি কী করবেন? ফার্নান্দেজের কথা, ‘আমি তখন মেসির সঙ্গে কথা বলব। মেসির ক্লাবকে বুরোফ্যাক্স করার ব্যাপারটি হয়তো ভুল ছিল। কিন্তু মেসিকে এটাও বুঝতে হবে বার্তোমেউ কিন্তু বার্সেলোনা নয়।’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন