১২ ম্যাচে নিষিদ্ধ হতে পারেন কোমান।
১২ ম্যাচে নিষিদ্ধ হতে পারেন কোমান।ছবি: এএফপি

লা লিগা ‘এল ক্লাসিকো’য় গত ২৪ অক্টোবর রিয়াল মাদ্রিদের কাছে ৩-১ গোলে হেরেছে বার্সেলোনা। এরপর স্পেনে ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি (ভিএআর) প্রযুক্তির সমালোচনা করেছিলেন বার্সা কোচ রোনাল্ড কোমান। স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনে এ প্রতিযোগিতার কমিটি কোমানের বিরুদ্ধে তদন্তের আইনি প্রক্রিয়া শুরু করেছে।

ক্যাম্প ন্যু তে মর্যাদার সেই ম্যাচে পেনাল্টি পেয়েছিল রিয়াল। সার্জিও রামোসকে বাধা দেওয়ার খেসারত গুণে পেনাল্টির পর গোলও হজম করতে হয় বার্সাকে। ম্যাচ শেষে সিদ্ধান্তটির সমালোচনা করেন বার্সা কোচ। ভিএআর-এর মাধ্যমে দেওয়া হয়েছিল সেই পেনাল্টির সিদ্ধান্ত। কোমান বলেছিলেন, পেনাল্টির সিদ্ধান্ত তাঁর ‘বোধগম্য হয়নি।’ বার্সা কোচের কণ্ঠে তখন ক্ষোভ ঝরেছিল, ‘রেফারির সিদ্ধান্ত বুঝতে পারিনি। শুধু বার্সার বিপক্ষে সিদ্ধান্ত দেওয়ার সময়ই ভিএআর দেখা যায়। সিদ্ধান্তগুলো সব সময় আমাদের বিপক্ষেই যায়। রেফারির মতে ওটা পেনাল্টি। কিন্তু আমার মাথায় ঢোকেনি, সিদ্ধান্তটি পছন্দ হয়নি।’

default-image
বিজ্ঞাপন

স্প্যানিশ ফুটবলে ভিএআর বা ‘ভার’ প্রযুক্তির সমালোচনাও করেছিলেন এ ডাচ কোচ, ‘রেফারিকে বলেছি, স্পেনে ভিএআর কীভাবে কাজ করে তা একদিন আমাকে বুঝিয়ে বলতে। কারণ আমরা যে পাঁচ ম্যাচ খেলেছি, সবগুলোতেই সিদ্ধান্ত বার্সেলোনার বিপক্ষে গেছে। যদিও সেভিয়ার বিপক্ষে মেসির পেনাল্টি কিংবা হেতাফের বিপক্ষে দুটি লাল কার্ডে এটি (ভিএআর) হস্তক্ষেপ করেনি।ভিএআর কেন সব সময় আমাদের বিপক্ষে যায়?’

রয়্যাল স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনের (আরএফইএফ) শৃঙ্খলা সংক্রান্ত নতুন বিধি অনুযায়ী, এমন মন্তব্যের জন্য ২ থেকে ১২ ম্যাচ পর্যন্ত নিষিদ্ধ হতে পারেন বার্সা কোচ কোমান। পাশাপাশি ৬০০ থেকে ৩০০০ ইউরো জরিমানাও হতে পারে তাঁর। কোমানের বিপক্ষে আইনগত এ প্রক্রিয়া শেষ হতে তিন থেকে চার সপ্তাহ সময় লাগতে পারে। রিয়াল বেতিস কোচ ম্যানুয়েল পেলেগ্রিনি এর আগে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে ম্যাচে ভিএআর প্রযুক্তির সমালোচনা করেছিলেন। তখন তাঁর বিরুদ্ধে ‘যেভাবে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছিল’ সেসব বিধি মেনেই কোমানের বিপক্ষে তদন্ত প্রক্রিয়া শেষ করা হবে।

বার্সার সাবেক সভাপতি জোসেপ মারিয়া বার্তোমেউয়ের বোর্ডের সদস্য জাভি ভিলায়োনার বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেবে আরএফইএফ। টুইটারে তিনি এল ক্লাসিকো নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেছিলেন। ম্যাচে রেফারির বিরুদ্ধে অশ্রাব্য সমালোচনা করেছিলেন তিনি। পরে তিনি ক্ষমা চাইলেও তাতে কাজ হয়নি।

মন্তব্য পড়ুন 0