মেসির 'নতুন জাভি'কে যে কারণে বিক্রি করছে বার্সেলোনা

বিজ্ঞাপন
default-image

ব্রাজিলিয়ান ক্লাব গ্রেমিওর হয়ে মাত্র ২১ বছরেই নিজের জাত চিনিয়েছিলেন আর্থুর মেলো। দুই বছর আগে গ্রেমিও ছেড়ে বার্সেলোনায় যোগ দেন এই ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার। তাকে বলা হতো বার্সার পরবর্তী জাভি হার্নান্দেজ। মেসিও তাকে জাভির সঙ্গেই তুলনা করেছিলেন। তাঁকে বলতেন নতুন জাভি। কিন্তু বার্সার জার্সিতে নিজের নামের প্রতি সেভাবে সুবিচার করতে পারেননি আর্থুর। কিছুদিন ধরেই বার্সেলোনা তাকে বিক্রির চেষ্টা করছিল। কিন্তু ভালো প্রস্তাব না পাওয়া যাচ্ছিল না। সে কারণেই হয়তো বিক্রির প্রক্রিয়াটা কিছু দিন বন্ধ ছিল। তবে এবার আর্থারকে জুভেন্টাসের জার্সিতে দেখা যেতে পারে। বার্সেলোনা আর্থারকে জুভেন্টাসে পাঠাতে চুক্তি করেছে।

আর্থুরের বদলে বার্সেলোনা জুভেন্টাস থেকে পাচ্ছে বসনিয়ান মিডফিল্ডার মিরালেম পিয়ানিচকে। তবে এই চুক্তিতে জুভেন্টাস কোনো টাকা পাচ্ছে না। উল্টো আর্থুর বার্ষিক ৭ মিলিয়ন ইউরো পাচ্ছেন জুভেন্টাস থেকে। আর্থুর অবশ্য বার্সেলোনা ছাড়তে রাজি ছিলেন না। কিন্তু অগত্যা, রাজি হয়েছেন।

এখনও আর্থুরের মধ্যেই জাভির ছায়া দেখেন মেসি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি ভিডিও সাক্ষাৎকারে মেসি জানান, ' বল নিয়ে তার কারিকুরি জাভির মতোই, একেবারে সেরকমই বল পেলে হারান না। সে আমাকে মুগ্ধ করেছে। বার্সেলোনায় আমরা যেভাবে খেলি, সেভাবেই ও খেলে। দ্রুত অনুশীলনটা বুঝে নিতে পারে এবং বার্সেলোনার সমর্থকেরা এমন খেলোয়াড়দেরই পছন্দ করে যারা বলটি নিজেদের দখলে রাখতে পারে। আমাদের মধ্যে মাঠে ভালো বোঝাপড়া আছে।'

বার্সেলোনা ছেড়ে যাওয়ার জন্য আর্থুর দুই ক্লাব থেকেই চাপের মধ্যে ছিলেন। এমনকি এরিক আবিদাল এবং রামোন প্লানেসের সঙ্গে যে বৈঠক হয়েছিল সেখানেও তারা ক্লাবের আর্থিক দুরবস্থার কথা জানান আর্থুরকে। তার বেতনও কেটে নেওয়া হতে পারে বলে সতর্ক করে দিয়েছিলেন তারা। ওদিকে পিয়ানিচের জন্যও মৌসুমটা ভালো কাটছে না। নতুন কোচ মারিসিও সারির অধীনে একাদশে সুযোগই পাচ্ছিলেন না সেভাবে। এবার নিশ্চয় সারি আর্থুরকে পুরোটা সময় খেলার সুযোগ করে দিতে চাইবেন।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন