মেসি যদি খেলতেন স্পেনের হয়ে!

বিজ্ঞাপন
default-image

আর্জেন্টিনার জার্সি কিছু জেতার জন্য কত-না হাপিত্যেশ লিওনেল মেসির। আবার এমন এক খেলোয়াড় থাকার পরও সাফল্যের দেখা না পাওয়ার হতাশা পোড়ায় আর্জেন্টিনাকে। গতকাল চ্যাম্পিয়নস লিগের সেমিফাইনালে লিভারপুলের বিপক্ষে মেসির পারফরম্যান্সের পর সে হতাশা বেড়েছে আরও। এই মেসিকে আর্জেন্টিনার জার্সিতে কখনো দেখা যাবে কি না, সে প্রশ্নটা উঠে গেছে আবারও। আবার আর্জেন্টিনার ব্যর্থতায় মেসির দায় কতটা সে আলোচনাটাও আবার উঠেছে।

মেসির কোনো আন্তর্জাতিক ট্রফি নেই, এ লাইনটা হয়তো লেখা যেত না; যদি ক্যারিয়ারের শুরুতেই একটি সিদ্ধান্ত নিতেন মেসি। কৈশোরেই বার্সেলোনার একাডেমিতে এসেছেন। ফলে জন্ম আর্জেন্টিনায় হলেও স্পেনের জার্সিটাও অবলীলায় গায়ে চাপাতে পারতেন মেসি। বার্সেলোনার একাডেমিতে বেড়ে ওঠা আরেক ফুটবলার থিয়াগো যেমন স্পেনের জার্সিতেই বিশ্বকাপ খেলেছেন। কিন্তু মেসির চিন্তাভাবনা থিয়াগোর ভাই রাফিনহার মতো। বেড়ে ওঠা স্পেনে হলেও আন্তর্জাতিক ফুটবলের জন্য পিতৃভূমি ব্রাজিলকে বেছে নিয়েছেন রাফিনহা। ঠিক যেমনটা ২০০৫ সালে মেসি করেছেন। স্প্যানিশ ফুটবল কর্মকর্তাদের অনুরোধের পরও আর্জেন্টিনার হয়েই খেলেছেন মেসি।

ভিসেন্তে দেল বস্কের এ নিয়ে এখনো আক্ষেপ রয়েছে। স্পেনকে বিশ্বকাপ ও ইউরো জেতানো এই কোচ যে খুব করেই মেসিকে স্পেন দলে চেয়েছিলেন। সর্বজয়ী স্পেন দলে মেসির দরকার ছিল কি না এমন প্রশ্নের উত্তরেও দেল বস্কের দাবি, স্পেন জাতীয় দলে মেসি অবশ্যই বাড়তি কিছু যোগ করত। আমি স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনকে জোড় দিয়ে বলেছিলাম, যেভাবেই হোক মেসিকে স্পেনের হয়ে খেলতে রাজি করাতে। কিন্তু লিওনেলে সেটা চায়নি এবং আমাদের ফিরিয়ে দিয়েছে। সে তাঁর দেশের হয়েই খেলতে চেয়েছে।'

মেসি আর্জেন্টিনা দলে যোগ দেওয়ার বছর চারেকের মধ্যেই স্পেন দল ২০০৮ ইউরো জিতেছে, ২০১২ ইউরোও জিতেছে তারা ।এর মাঝে ২০১০ বিশ্বকাপও জিতেছে স্পেন, যে ট্রফির স্বপ্নে এখনো দিন কাটাচ্ছেন মেসি। টিকিটাকা ফুটবলের সে দলে মেসিকে পেলে যে দলের ভারসাম্যে কোনো প্রভাব পড়ত না এটা নিশ্চিত দেল বস্ক, ‘মেসি আমাদের দলে এলে কোনো দিক থেকেই খারাপ হতো না, বরং এটাই সবচেয়ে ভালো হতো। মেসি হচ্ছে মেসি এবং ওর মতো মাত্র একজনই আছে। আমি জানি না আরও বেশি শিরোপা জিততাম কি না, কিন্তু আমি নিশ্চিত ও এলে আমাদের ক্ষতি হতো না। বরং ও এলে আমরা আরও ভালো হতাম।’

রিয়াল মাদ্রিদকে চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতানো এই কোচ আন্তর্জাতিক ফুটবলেও সফল হয়েছেন স্পেনের সুবাদে। তবু তাঁর একটি স্বপ্ন অপূর্ণ রয়ে গেছে। রেডিও ভিলা ত্রিনিদাদকে বলেছেন, ‘যদি স্বপ্নের কথা বলি, আমি স্পেন দলে মেসির কোচ হতে পারলে ভালো লাগত। আমি ভাগ্যবান যে অসাধারণ সব খেলোয়াড়ের কোচ হতে পেরেছিলাম। মেসি যদি তাদের চেয়ে ভালো নাও হয়, অন্তত তাদের সমান।’

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন