র‍্যামন সানচেজ স্টেডিয়ামে প্রথমার্ধটা দেখে মনে হচ্ছিল, বার্সেলোনার কোচ জাভি হার্নান্দেজের চাওয়া তাহলে কিছুটা হলেও পূরণ করতে যাচ্ছে রিয়াল মাদ্রিদ! এই মৌসুমে বার্সার আর শিরোপা জেতার আশা আছে কি না, এমন প্রশ্নে জাভি গত সপ্তাহেই বলেছিলেন, ‘আমাদের এখন রিয়ালের পয়েন্ট হারানোর অপেক্ষায় থাকতে হবে। দেখা যাক সুযোগ আসে কি না।’

বিরতির আগে যেন রিয়াল বার্সাকে সেই সুযোগ দিতেই খেলল। কিংবা গত বুধবার সান্তিয়াগো বার্নাব্যুতে চেলসির বিপক্ষে সেই স্নায়ুক্ষয়ী ম্যাচের রেশ কাটিয়ে আড়মোড়া ভাঙতে একটু সময় নিল। ততক্ষণে দুই গোল করে ম্যাচের লাগাম হাতে নিয়ে গেছে সেভিয়া। দুটোই অবশ্য রিয়াল মাদ্রিদের রক্ষণের ভুলে।

default-image

নিজেদের বক্সে লুকা মদরিচ ফাউল করে বসেন প্রতিপক্ষ মিডফিল্ডার পাপু গোমেজকে। ফ্রি-কিক পায় সেভিয়া। ইভান রাকিতিচ শট নেওয়ার আগেই লাফাতে গিয়ে রক্ষন-দেয়াল ভেঙ্গে ফেলেন রিয়ালের খেলোয়াড়েরা। সেই ফাঁকা জায়গা দিয়েই বল গেছে রিয়ালের জালে।

চার মিনিট পরে রিয়ালের রক্ষণ ভেঙ্গে দারুন গতিতে ডি-বক্সে ঢুকে পড়েন হেসুস করোনা। তাঁকে আটকাতে শেষ পর্যন্ত গোলপোস্ট ছেড়ে বেরিয়ে আসেন থিবো কর্তোয়া। কিন্তু এর আগেই করোনা বল বাড়িয়ে দেন এরিক লামেলার জন্য। আর্জেন্টাইন উইঙ্গারের শট চলে যায় রিয়ালের জালে।

default-image

বিরতির পর রিয়াল বুঝি একটু গা ঝাড়া দিয়ে নামে! আর তাতে ফলও পায়। ৫০ মিনিটের সময় দানি কারভাহালের পাস থেকে গোল করে ব্যবধান কমান বদলি নামা রদ্রিগো। ওই গোলের পর সেভিয়ার বক্সে যাওয়া-আসা বেড়ে যায় রিয়ালের। তবে সমতা ফেরানো গোলটা হচ্ছিল না বেনজেমা-মিলিতাওরা একের পর এক সুযোগ নষ্ট করে যাওয়ায়। একবার তো লুকা মদরিচের হেড থেকে বল পেয়ে ভিনিসিয়ুস জুনিয়র সেভিয়ার জালে বলও পাঠান। কিন্তু ভিনিসিয়ুসের হ্যান্ডবল দেখিয়ে রেফারি বতিল করে দেন সেই গোল।

default-image

সমতা ফেরানো গোলটা রিয়াল শেষ পর্যন্ত পেয়েছে ৮২ মিনিটে, নাচো ফার্নান্দেজের কাছ থেকে। কর্নার থেকে আসা বল দানি কারভাহাল কাটব্যাক করেছিলেন ফার্নান্দেজকে।

default-image

এক পয়েন্ট নিয়েই রিয়ালকে সন্তুষ্ট থাকতে হবে, এমন যখন মনে হচ্ছে, তখনই বেনজেমা জাদু। ভিনিসিয়ুস জুনিয়রের কাছ থেকে বল পেয়ে রদ্রিগো চেষ্টা করেছিলেন শট নিতে, সেভিয়ার ডি-বক্সে জটলায় ঢুকে কাট ব্যাক করেন বেনজেমাকে। এইবার আর সুযোগ নষ্ট করেননি ফরাসি স্ট্রাইকার। সাত মিনিট যোগ করা সময়ের তখন দ্বিতীয় মিনিটের খেলা চলছে। এরপরে আর সেভিয়াকে ম্যাচে ফিরতে দেয়নি রিয়াল।

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন