বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

কোমানকে ছাঁটাইয়ের জন্য চাপ বাড়ছে বার্সেলোনা বোর্ডের ওপর। কিন্তু আর্থিক দুরবস্থায় কোমানকে ছাঁটাই করে জরিমানা দেওয়ার ইচ্ছা নেই বলে সে কাজটা করা হচ্ছে না ক্লাবটির। ক্লাব সভাপতি হোয়ান লাপোর্তার সঙ্গে দ্বন্দ্ব প্রকাশ্য হয়ে উঠছে দিন দিন। গতকাল লাপোর্তা সমর্থকদের আশ্বস্ত করেছেন, ক্লাবের ভালোর জন্য ব্যবস্থা নেবেন। এক ভিডিও বার্তায় বলেছেন, ‘আপনাদের সবার মতো আমিও হতাশ এবং মর্মাহত। চিন্তা করবেন না, আমরা এই সমস্যার সমাধান করব।’

এমন এক বার্তার পর আজ কোমানের জবাব শোনার অপেক্ষায় ছিলেন সবাই। কারণ, সংবাদ সম্মেলনে কোনো রাখঢাক না রেখেই কথা বলে ফেলেন কোমান। আজ তাই কোনো ঝুঁকিই নেননি কোমান। পূর্বনির্ধারিত সংবাদ সম্মেলনে এসে সাংবাদিকদের কোনো প্রশ্ন করার সুযোগ দেননি। একটি লিখিত বিবৃতি পাঠ করে আবার বেরিয়ে গেছেন।

default-image

বিবৃতিতে সমর্থকদের কঠিন সময়ে পাশে থাকতে বলেছেন কোমান। বিবৃতিটা শুরু হয়েছে এভাবে, ‘সবাইকে অভিবাদন। পুনর্গঠনের এই সময়টায় কোচ হিসেবে আমার পাশেই আছে ক্লাব। ক্লাবের আর্থিক অবস্থার সঙ্গে ক্রীড়া কার্যক্রম যুক্ত এবং ক্রীড়া সাফল্যের সঙ্গে আর্থিক অবস্থাও জড়িত। এর অর্থ হলো, কোনো বড় আর্থিক বিনিয়োগ না করেই দলকে পুনর্গঠন করতে হবে। এ জন্য সময়ের প্রয়োজন।’

সময় নিয়ে কীভাবে দলকে সাজাতে চান, সেটাও বলা হয়েছে বিবৃতিতে, ‘এখন যারা তরুণ প্রতিভা, আগামী কয়েক বছরে তারাই বিশ্ব তারকা হয়ে উঠতে পারে। এই দলকে পুনর্গঠনের জন্য তরুণ খেলোয়াড়দের, জাভি ও ইনিয়েস্তার যেমন দেওয়া হয়েছিল, তেমন সুযোগ দেওয়া হবে। কিন্তু এ জন্য ধৈর্য ধরতে হবে।’

ভবিষ্যৎ নিয়ে আশাবাদী হলেও বর্তমান নিয়ে হতাশার কথাই শোনানো হয়েছে বিবৃতিতে। ঠারেঠোরে এবার কোনো শিরোপা জেতার আশা ছেড়ে দিতে বলা হয়েছে কোমানের বিবৃতিতে, ‘লা লিগায় শীর্ষ পর্যায়ে থাকাটাই অনেক বড় অর্জন। চ্যাম্পিয়নস লিগে আমরা অলৌকিকের আশা করতে পারি না। গত সপ্তাহে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে হারটা সেই দৃষ্টিকোণ থেকে বিশ্লেষণ করতে হবে। আমরা এখন যে অবস্থায় আছি, তাতে দল ও এর সংশ্লিষ্ট কর্মীদের নিঃশর্ত সমর্থন দরকার। সেটা মুখে ও কাজে দেখাতে হবে। আমি জানি, সংবাদমাধ্যম এই প্রক্রিয়ার স্বীকৃতি দেয়।’

বার্সেলোনার অতীতের কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে আরেকটু সময় চাইছেন কোমান। বিবৃতির শেষে বলা হয়েছে, ‘বার্সেলোনার ইতিহাসে এবারই প্রথম এটা ঘটেনি। এই কঠিন সময়গুলোতেই আপনাদের সমর্থনের ওপর নির্ভর করছি। খেলোয়াড় ও কর্মীরা গ্রানাদার বিপক্ষে যে বিপুল সমর্থন পেয়েছি, তাতে খুবই তৃপ্ত। বার্সেলোনা দীর্ঘজীবী হোক, সবাইকে ধন্যবাদ।’

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন