সুয়ারেজ আনন্দ চেপে রাখতে পারলেন না

বিজ্ঞাপন
default-image
>

৩০ বছরের অপেক্ষা ঘুচিয়ে ইংল্যান্ডের শীর্ষস্থানীয় লিগের শিরোপা জিতেছে লিভারপুল। এই আনন্দে ভেসে যাচ্ছেন বার্সেলোনায় খেলা লিভারপুলের সাবেক স্ট্রাইকার লুইস সুয়ারেজ

২০১৩-১৪ মৌসুম কি কখনো ভুলতে পারবেন স্টিভেন জেরার্ড-লুইস সুয়ারেজরা? কত কাছে গিয়েও ছুঁয়ে দেখা হয়নি প্রিমিয়ার লিগের ট্রফিটা। সেবার তীরে গিয়ে তরী না ডুবলে প্রিমিয়ার লিগ শিরোপা জয়ের আক্ষেপ ৬ বছর আগেই ঘুচে যেত লিভারপুলের।
জেরার্ড-সুয়ারেজদের সেই আক্ষেপ কিছুটা হলেও ঘুচেছে গত পরশু রাতে। চেলসির কাছে ম্যানচেস্টার সিটি হেরে যাওয়ায় ৭ ম্যাচ হাতে রেখেই শিরোপা নিশ্চিত হয় লিভারপুলের। অবসান হয়েছে ৩০ বছরের অপেক্ষার। অ্যানফিল্ড ভেসে গেছে আনন্দের বন্যায়। আনন্দ কি শুধু অ্যানফিল্ডেই আটকে ছিল! অ্যানফিল্ডের সীমানা ছাড়িয়ে তা ছড়িয়ে পড়েছে কত জায়গায়।

স্কটল্যান্ডের রেঞ্জার্সেও আনন্দের বাতাবরণ ছড়িয়েছে। ২০১৩-১৪ মৌসুমে একটুর জন্য শিরোপা জিততে না পারা দলটির অধিনায়ক জেরার্ড যে এখন রেঞ্জার্সের কোচ। উত্তরসূরিরা ২ পয়েন্টের সেই যাতনা লাঘব করায় নিশ্চয়ই আনন্দে ভেসে গেছেন রেঞ্জার্সের কোচ। আনন্দ লেগেছে বার্সেলোনাতেও। ২০১৩-১৪ মৌসুমে লিভারপুলের তারকা স্ট্রাইকার সুয়ারেজ যে এখন কাতালান ক্লাবটির।

মনের আনন্দটা চেপে রাখেননি সুয়ারেজ। বার্সেলোনা থেকে বার্তা পাঠিয়েছেন উরুগুইয়ান স্ট্রাইকার, ‌'জর্ডান (হেন্ডারসন) ও লিভারপুলের অন্য সব খেলোয়াড়—তোমাদের জন্য আমি খুব আনন্দিত। আনন্দিত তোমাদের পরিবার, লিভারপুলে যারা কাজ করছে এবং লিভারপুলের সমর্থকদের জন্যও।'

লিভারপুল টেলিভিশন এলএফসি টিভিকে সুয়ারজে বলেছেন, ‌'তোমরা সবাই মিলে মুহূর্তটা উপভোগ কর। কারণ লিভারপুলের সমর্থকদের জন্য এটা অসাধারণ এক ব্যাপার। তোমরা চ্যাম্পিয়ন!'

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন