বিজ্ঞাপন
default-image

ইউরোপের সেরা সম্ভাবনাময় প্রতিভাদের এক অংশ এখন ডর্টমুন্ডে। ইংলিশ জেডন সাঞ্চো ও জুড বেলিংহাম, নরওয়েজিয়ান আর্লিং হরলান্ড, জার্মান ইউসুফা মুকোকো, যুক্তরাষ্ট্রের জিওভান্নি রেইনা—প্রলুব্ধ করার মতো খেলোয়াড়ের কমতি নেই। এর মাঝেও আলাদা করে হরলান্ড বেশি গুরুত্ব পাচ্ছেন। দেড় বছর আগে ডর্টমুন্ডে যোগ দেওয়ার পর ৫৭ ম্যাচে ৫৫ গোল তাঁর। নিখুঁত স্ট্রাইকারের আকালের দিনে ২০ বছর বয়সী এই দীর্ঘদেহীকে তাই টানাটানি পড়ে গেছে। সামনের জুলাই-আগস্টের পুরো সময়টা তাই হরলান্ডকে নিয়ে ব্যস্ত থাকতে হতে পারে সাংবাদিকদের।

এদিকে ডর্টমুন্ড সাফ জানিয়ে দিয়েছে, কোনোভাবেই এ মৌসুমে তারা হরলান্ডকে ছাড়বে না। রিয়াল মাদ্রিদ, বার্সেলোনা, ম্যানচেস্টার সিটি, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও চেলসির মতো দলগুলো সবাই হরলান্ডকে পেতে আগ্রহী। কিন্তু সব সময়ের মতোই মূল আকর্ষণ রিয়াল ও বার্সেলোনাকে ঘিরে। এ ব্যাপারে ডর্টমুন্ডের প্রধান নির্বাহী হান্স ওয়াৎসকের কাছে প্রশ্ন করেছিল জার্মান পত্রিকা বিল্ড। ডর্টমুন্ডের প্রধান নির্বাহী দুই স্প্যানিশ ক্লাবের আশার বেলুন ফুটো করে দিয়েছেন, ‘আগামী বছর আর্লিং হরলান্ড আমাদের হয়ে খেলবে বলেই আশা করি। রিয়াল মাদ্রিদ ও বার্সেলোনা? আমার ধারণা হরলান্ডের চুক্তির কী অবস্থা এবং আমাদের অবস্থান জানা আছে তাদের।’

default-image

গত এপ্রিলে হরলান্ডের এজেন্ট মিনো রাইওলা ও তাঁর বাবা বার্সেলোনা ও রিয়াল মাদ্রিদের মুখপাত্রের সঙ্গে দেখা করে এসেছেন। কিন্তু এমন ঘটনার পরও ডর্টমুন্ড হরলান্ডকে ধরে রাখার দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। গত দলবদলে জেডন সাঞ্চোকে আটকে রাখতে ঠিক যেমন লড়াই করেছিল তারা, সেভাবেই লড়বে ক্লাবটি। গতবার জেডন সাঞ্চোকে কিনতে চেয়েছিল ইউনাইটেড। খেলোয়াড় নিজেও এ ব্যাপারে ইঙ্গিতে ইচ্ছার কথা জানিয়েছিলেন। ডর্টমুন্ড নির্দিষ্ট একটি মূল্য এবং নির্দিষ্ট সময় বেঁধে দিয়েছিল সে দলবদল করার জন্য। ডর্টমুন্ডের গায়ে ‘বিক্রেতা ক্লাব’ ট্যাগ থাকায় ইউনাইটেড ভেবে নিয়েছিল, একটু সময় নিয়েই দর-কষাকষি করবে তারা। কিন্তু নিজেদের কথাতেই স্থির ছিল ডর্টমুন্ড, কোনোভাবেই সাঞ্চোকে ছাড়েনি একবার চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতা ক্লাবটি।

নিজেদের সেই চরিত্রের কথা সবাইকে মনে করিয়ে দিয়েছেন ওয়াৎসকে, ‘আমি পুরোপুরি শান্ত আছি। গত মৌসুমে দলবদলের সময় পার হওয়ার আগপর্যন্ত সাঞ্চোর ব্যাপারে আমাদের কথা কেউ বিশ্বাস করেনি। কিন্তু সে এখনো আমাদের সঙ্গেই আছে। আপনার একটা স্কোয়াড থাকবে, যেখানে হয় আপনি খেলোয়াড় কিনবেন এবং তাকে ছেড়ে দেবেন অথবা দেবেন না। আমরা এটা মেনে নিতে পারি এবং এতে তৃপ্ত। কারণ, বর্তমান চুক্তিতে কী আছে, সেটা জানি এবং এটা আমাদের অনেক সাহায্য করে।’

ফুটবল থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন