বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

চার জাতি রাগবি চ্যাম্পিয়নশিপ হচ্ছে অস্ট্রেলিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য কুইন্সল্যান্ডের গোল্ড কোস্টে। আর্জেন্টিনার ওই ছয় খেলোয়াড় ও দলের অন্য দুই সদস্য কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়াই পাশের রাজ্য নিউ সাউথ ওয়েলসের বায়রন বে শহরে বেড়াতে গিয়ে বিপদ ডেকে এনেছেন।

সেখান থেকে ফেরার পথে কুইন্সল্যান্ড ও নিউ সাউথ ওয়েলসের সীমান্তে আর্জেন্টাইনদের আটকে দেয় কর্তৃপক্ষ। করোনাবিধি অনুসারে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে কেউ কুইন্সল্যান্ডে ঢুকতে চাইলে যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিতে হয় এবং বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে যেতে হয়।

default-image

আর্জেন্টাইনদের নতুন এ কাণ্ডের পর টুর্নামেন্ট কর্তৃপক্ষ আজ এক বিবৃতিতে আর্জেন্টাইন খেলোয়াড়দের নিষিদ্ধ করার কথা জানায়, ‘এক রাজ্য থেকে অন্য রাজ্যে ভ্রমণের এই ঘটনায় কুইন্সল্যান্ড রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্যবিধি সরাসরি লঙ্ঘিত হয়েছে। রাগবি চ্যাম্পিয়নশিপের জৈব সুরক্ষাবলয়কেও ঝুঁকির মুখে ফেলে দিয়েছে তারা। যারা আইন ভেঙেছে, তারা এই টুর্নামেন্টে আর খেলতে পারবে না।’

ছয় খেলোয়াড়কে হারালেও অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে আর্জেন্টিনার ম্যাচটি বাতিল হচ্ছে না। টুর্নামেন্টের প্রতিটি দলই ৪৪ জনের বিশাল দল নিয়ে খেলতে গিয়েছে। এ কারণেই ম্যাচ বাতিল হওয়ার কোনো আশঙ্কা নেই। ছয় খেলোয়াড়ের সঙ্গে নিষিদ্ধ হয়েছেন দলটির ম্যানেজার ও ভিডিও অ্যানালিস্ট।

default-image

যে ছয় খেলোয়াড় নিষিদ্ধ হয়েছেন, তাঁদের দুজন সান্তিয়াগো মেদরানো ও পাবলো মাতেরা দলের নিয়মিত সদস্য। নিষিদ্ধ আরেক খেলোয়াড় সান্তিয়াগো সোসিনোও বদলি হিসেবে নিয়মিত মাঠে নামেন।

আর্জেন্টিনা দলটি অবশ্য আগে থেকেই বিপদে ছিল অস্ট্রেলিয়ায়। টুর্নামেন্টে এ পর্যন্ত পাঁচটি ম্যাচ খেলে সব কটিতেই হেরেছে দলটি।

অন্য খেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন