বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

একদিকে নিউইয়র্ক, ওদিকে নিউ জার্সি—হাডসন নদীর এপার আর ওপার। তাই বলে তাদের এক করে দেখার উপায় নেই। ভিন্ন দুই শহর ও ভিন্ন দুই রাজ্যের নাগরিকদের মধ্যকার দ্বন্দ্ব নিয়ে হলিউডের চলচ্চিত্র ও টিভি সিরিজে বেশ রসিকতা করা হয়। নিউইয়র্কবাসীর ‘জাত্যাভিমান’ আরও একবার টের পাওয়া গেল নতুন করে।
রাগবি লিগ ন্যাশনাল ফুটবল লিগে (এনএফএল) এই রাজ্যের দুটি দল নিউইয়র্ক জায়ান্ট ও নিউইয়র্ক জেটস বেশ পরিচিত নাম। কিন্তু দুই দলই নিজেদের ম্যাচ খেলে মেটলাইফ স্টেডিয়ামে। যে স্টেডিয়ামের অবস্থান নদীর ওপারে নিউ জার্সির পূর্ব রাদারফোর্ডে।

নিজ শহরের দলের খেলা দেখার জন্য অন্য রাজ্যে যাওয়া-আসার এই ঝামেলা, তার চেয়েও বড় কথা এই ‘অপমান’ আর সহ্য হচ্ছে না সুয়েরোর। দুই দল আসলেই কোন রাজ্যের হয়ে খেলছে, সেটার ব্যাখ্যা চেয়েছেন সুয়েরো। ম্যানহাটনের ফেডারেল আদালতে ৬০০ কোটি ডলারের মামলাও করে দিয়েছেন! মামলায় সুয়েরো দাবি জানিয়েছেন, নিউ জার্সির মেটলাইফ স্টেডিয়াম থেকে দুই দল যেন ম্যাচ সরিয়ে নেয় এবং ২০২৫ সালের মধ্যে নিউইয়র্কে ফেরে। মামলার কাগজে এটাও বলা হয়েছে, দুই দল যত দিন নিউ জার্সিতে খেলবে, তত দিন যেন ইস্ট রাদারফোর্ড জায়ান্টস ও ইস্ট রাদারফোর্ড জেটস নামে খেলে!

আদালতে জমা দেওয়া কাগজে গ্রিনউইচ গ্রামের সুয়েরো বলেছেন, ‘যদি জায়ান্টস ও জেটস নিউইয়র্কের দল হিসেবে নিজেদের পরিচয় দিতে চায়, তাহলে তাদের নিউইয়র্কে ফিরে আসতে হবে। আমি গণপরিবহন ও গাড়ি ব্যবহার করে মেটলাইফ স্টেডিয়ামে যাওয়া-আসা করেছি। দুটি পথই দুঃস্বপ্নের মতো। ম্যাচের দৈর্ঘ্যের চেয়ে যাতায়াতেই সময় বেশি যায়। পুরো দিনটাই নষ্ট হয়ে যায়। যাতায়াতের পেছনে ম্যাচের টিকিটের মতোই খরচ হয়।’

মামলার বিবৃতিতে লেখা, ‘ম্যাচের দিন গণপরিবহন বা গাড়ি ব্যবহার করে নিউইয়র্ক শহর ও রাজ্য থেকে নিউ জার্সির পূর্ব রাদারফোর্ডে যেতে বাধ্য হওয়ায় মামলার বাদী ও লাখ লাখ সদস্যের অনেক ক্ষতি হয়েছে, কারণ এটা ব্যয়বহুল ও এতে অনেক সময় নষ্ট হয়েছে। বাদীর মতোই জায়ান্টস ও জেটসের ৯০ ভাগ সমর্থকই নিউইয়র্কে বাস করেন।’

মামলায় বলা হয়েছে, দুই দলের কারণে বাদীর মতো এই দুই দলের সব সমর্থক ‘মানসিক ও আবেগজনিত ক্ষতির শিকার হয়েছেন, যার মধ্যে অবসাদ, মন খারাপ ও দুশ্চিন্তার মতো ব্যাপারও আছে।’ মামলায় ২০০ কোটি ডলার চাওয়া হয়েছে আর্থিক ক্ষতিপূরণ হিসেবে। আর বাড়তি শাস্তি হিসেবে আরও ৪০০ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ চাওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে, এই ক্ষতিপূরণের অর্থ নিউইয়র্কে বাস করা দুই দলের সমর্থকদের মধ্যে ভাগ করে দেওয়া হবে।

এ ব্যাপারে জেটস কোনো জবাব দেওয়ার প্রয়োজন দেখেনি। তবে জায়ান্টস এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ‘এই মামলার কোনো ভিত্তি নেই এবং আমরা এর কড়া জবাব দেব।’ জায়ান্টস রাদারফোর্ডে ১৯৭৬ সাল থেকেই খেলছে। আর জেটস তাদের সঙ্গী হয়েছে ১৯৮৪ সালে।

অন্য খেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন