default-image

তিন ম্যাচের সিরিজের প্রথম দুটি ম্যাচ রাগবি সেভেনস। বিকেলে একই ভেন্যুতে হবে দ্বিতীয় ম্যাচ। আর আগামীকাল তৃতীয় ম্যাচটি হবে রাগবি ফিফটিনস।

আন্তর্জাতিক এই রাগবি সিরিজের জন্য তিন মাসের প্রস্তুতি নিয়েছে বাংলাদেশ। এই দলের সব খেলোয়াড়ই বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর। নেপাল দলের আটজন সে দেশের সেনাবাহিনীর।

default-image

প্রথমবার দেশে আয়োজিত হচ্ছে কোনো আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা। এমন একটি প্রতিযোগিতার অংশ হতে পেরে গর্বিত বাংলাদেশ রাগবি দলের অধিনায়ক নাদিম মাহমুদ, ‘জাতির জনকের নামে প্রথম আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করেছে ফেডারেশন। এই টুর্নামেন্টে প্রথম ম্যাচ জিতে ইতিহাসের অংশ হয়েছি। খুবই ভালো লাগছে আমার।’

পরের ম্যাচগুলো জিতে সিরিজও নিশ্চিত করতে চান মাহমুদ, ‘প্রচণ্ড গরমে খেলতে গিয়ে একটু সমস্যা হচ্ছিল। কিন্তু আমাদের খেলোয়াড়দের ফিটনেস ভালো। পুরো ম্যাচেই সবাই ভালো খেলেছেন। পরের ম্যাচগুলো জিতে আশা করি ট্রফিটা আমাদের কাছেই রেখে দেব।’

default-image

আন্তর্জাতিক রাগবি সিরিজ উপলক্ষে ঢাকায় এসেছেন এশিয়ান রাগবি ফেডারেশনের সভাপতি কায়েস আবদুল্লাহ আল দালাই। বাংলাদেশ এমন আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট যেন আরও বেশি আয়োজন করতে পারে, সে ব্যাপারে সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দিলেন দালাই, ‘এখানে আসতে পেরে খুবই ভালো লেগেছে আমার। এর আগেও বাংলাদেশকে সহযোগিতা করেছে এশিয়ান রাগবি ফেডারেশন। এটা নতুন কিছু নয় আমাদের জন্য। আরও বেশি আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট আয়োজন করতে যা সহযোগিতা লাগে, সেগুলো করতে চাই আমরা।’

এর আগে প্রতিযোগিতার উদ্বোধন করেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান। উপস্থিত ছিলেন রাগবি ফেডারেশনের সভাপতি ও ঢাকা -১০ আসনের সাংসদ শফিউল ইসলাম।

অন্য খেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন