default-image

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ বুরকিনা ফাসো গতকাল বৃহস্পতিবার থেকে স্কুল ও কলেজ খুলে দিয়েছে। করোনাভাইরাস মহামারির কারণে টানা ছয় মাস বন্ধ থাকার পর নতুন করে করোনার সংক্রমণ না থাকায় এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটি। বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

করোনার সংক্রমণ শুরু হলে গত ১৬ মার্চ থেকে দেশটিতে স্কুল–কলেজ বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা আসে। ওই সময় বন্ধ হয়ে যাওয়া পরীক্ষায় শিক্ষার্থীদের অংশ নিতে হবে। উইডটগিন প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষক ম্যারি ক্লারিস ক্যাবোর জানান, ‘আমাদের পরিকল্পনা হচ্ছে যেখানে আমরা শেষ করেছিলাম, সেখান থেকেই শুরু করা এবং গত বছরের কোর্স  দ্রুত শেষ করে ফেলা। নতুন বছরের কোর্স শুরুর আগেই গত বছরের কোর্স শেষ করে ফেলতে চাই। এ জন্য নভেম্বরের মাঝামাঝি পর্যন্ত সময় পাচ্ছি।’

বিজ্ঞাপন

উইডটগিন প্রাইমারি স্কুল খোলার অনুষ্ঠানে ওয়াগাডগুর মেয়র ও শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। এ সময় শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের মধ্যে মাস্ক বিতরণ করা হয় এবং সামাজকি দূরত্ব বজায় রাখার বিষয়টি মানতে বলা হয়।

গতকাল বৃহস্পতিবার বুরকিনা ফাসোতে নতুন করে করোনার সংক্রমণ শনাক্ত হয়নি।

এখন পর্যন্ত দেশটিতে দুই হাজারের মতো মানুষ করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ও ৫০ জন মারা গেছেন। ২ লাখ ৭৪ হাজার ২০০ বর্গকিলোমিটার আয়তনের দেশটিতে দুই কোটির বেশি মানুষ বাস করে।

মন্তব্য করুন