জাপান টাইমসের খবরে বলা হয়, সতর্কতা জারি করা এলাকাগুলোর মধ্যে কুমামাতো প্রশাসনিক এলাকার হিতোইয়োশি, মিয়াজাকি প্রশাসনিক এলাকার এবিনো ও কাগোশিমা প্রশাসনিক এলাকার সাতসুমাসেন্দাইসহ বেশ কয়েকটি শহর রয়েছে। নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে না পারলে এসব এলাকার বাসিন্দাদের বাড়ির ছাদে অবস্থান করতে বলা হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ এলাকার লোকজনকে নদী ও পাহাড় থেকে দূরে থাকতে বলা হয়েছে। কাগোশিমা প্রশাসনিক এলাকা সড়ক ধসে ১০টি পরিবার আটকা পড়েছে। সেখানে প্রায় ১০০টি আশ্রয়কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়েছে।

এদিকে মাত্র এক সপ্তাহ আগেই আতামি শহরে ভারী বৃষ্টিপাতের পর ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। এতে কমপক্ষে নয়জন নিহত হয়। এখনো নিখোঁজ ২০ জন।