বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়ে উত্তর কোরিয়া জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের প্রস্তাব লঙ্ঘন করেনি। তবে দেশটি অতীতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের প্রস্তাব লঙ্ঘন করে নিষিদ্ধ অস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়ে কঠোর নিষেধাজ্ঞায় পড়েছে।

বিবিসি বলছে, কঠোর নিষেধাজ্ঞার মধ্যে থেকেও উত্তর কোরিয়া ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালাল। এর মধ্য দিয়ে এ বিষয় ইঙ্গিত করে, খাদ্যের ঘাটতি ও অর্থনৈতিক সংকটে থাকা সত্ত্বেও উত্তর কোরিয়া অস্ত্র তৈরি করতে সক্ষম।

যুক্তরাষ্ট্র তার প্রতিক্রিয়ায় বলেছে, উত্তর কোরিয়ার ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর মধ্য দিয়ে এ বিষয় সামনে আসে যে দেশটি তার সামরিক কর্মসূচির ওপর গুরুত্ব দেওয়া অব্যাহত রেখেছে। উত্তর কোরিয়া এখনো তার প্রতিবেশী ও আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের জন্য হুমকি হিসেবে রয়ে গেছে।

যুক্তরাষ্ট্র জানায়, তারা তাদের মিত্র দক্ষিণ কোরিয়া ও জাপানকে রক্ষার প্রতিশ্রুতিতে অনড় অবস্থানে রয়েছে।

ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা না করার বিষয়ে উত্তর কোরিয়ার ওপর জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের চেয়ে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রকে বড় হুমকি হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

উত্তর কোরিয়া সবশেষ গত মার্চ মাসে এ ধরনের ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালায়, যার পরিপ্রেক্ষিতে যুক্তরাষ্ট্র, জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়া তীব্র প্রতিক্রিয়া জানায়।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন