পৃথিবীর সর্বোচ্চ পর্বতশৃঙ্গ এভারেস্টে ওঠার অনুমতি নিয়ে কয়েক শ পর্বতারোহীর সঙ্গে বিরোধে জড়িয়ে পড়েছে নেপালের কর্তৃপক্ষ। শেরপাদের ধর্মঘটের কারণে গত বছর যাত্রা বাতিল করতে বাধ্য হওয়া ওই অভিযাত্রীরা আগের অনুমতিতেই এ বছর চেষ্টা করতে চান। তবে কর্তৃপক্ষ এখনো খোলাসা করে কিছু বলেনি। খবর বিবিসি ও এএফপির।
সংশ্লিষ্ট পর্বতারোহীরা বলেছেন, ২০১৪ সালে অভিযানে সহায়তাকারী স্থানীয় শেরপাদের ধর্মঘটের কারণে তাঁরা অভিযাত্রার পরিকল্পনা বাতিল করতে বাধ্য হলে পরবর্তী পাঁচ বছরের জন্য বৈধতা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল নেপালের কর্তৃপক্ষ। চলতি বছরের আরোহণ মৌসুম শুরু হতে মাত্র কয়েক সপ্তাহ বাকি। অথচ কর্তৃপক্ষ তাঁদের বিষয়ে কিছুই বলছে না। এতে করে তাঁরা ধোঁয়াশার মধ্যে রয়েছেন।
শেরপাদের ধর্মঘটের কারণে গত বছর এভারেস্ট অভিযান বাতিল করতে বাধ্য হয়েছিলেন প্রায় ৩০০ পর্বতারোহী। গত বছরের এপ্রিল মাসে তুষারধসে ১৬ শেরপার মৃত্যুর ঘটনার প্রতিবাদে ধর্মঘট শুরু করা হয়। তাঁদের আন্দোলনের মুখেই ১৯৯০-এর দশক থেকে পর্বতারোহীরা এভারেস্টে ওঠার যে পথটি ব্যবহার করে আসছেন, অতি সম্প্রতি তা পরিবর্তন করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। শেরপাদের নিরাপত্তার উন্নয়নে এ পদক্ষেপ নেওয়া হয়।
নেপালের সরকারি কর্মকর্তারা বলছেন, তাঁরা ওই পর্বতারোহীদের আগের অনুমতি দিয়েই চূড়ায় উঠতে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। তবে তাঁরা গত বছর যে অভিযাত্রী দলে ছিলেন, ঠিক সেই দলভুক্ত হয়েই আসতে হবে। অভিযান পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠানগুলো একে আপত্তি জানিয়ে বলেছে, ওই পর্বতারোহীরা বিভিন্ন দেশের বলে এটা সম্ভব হবে না।
‘হিমালয়ান এক্সপেরিয়েন্স’ নামের একটি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা রাসেল ব্রাইস বলেন, ‘আমাদের একটি দলের অভিযাত্রা শুরুর মাত্র ছয় সপ্তাহ বাকি। অথচ এখনো কেউ-ই কিছুই জানে না।’

বিজ্ঞাপন
এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন