default-image

আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) নেতা আবু বকর আল-বাগদাদির উত্তরসূরি আবদুল নাসের আল-কিরদাশকে গ্রেপ্তার করেছে ইরাকের গোয়েন্দা সংস্থা। সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইভিত্তিক টেলিভিশন আল-এরাবিয়ার খবরে এই তথ্য জানানো হয়েছে গত বুধবার।

গত বছরের অক্টোবরে সিরিয়ার ইদলিব প্রদেশে মার্কিন অভিযানের মুখে বাগদাদি আত্মঘাতী হন। এরপর এ নিয়ে নানা জল্পনাকল্পনা শুরু হয়। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পও জানান, বাগদাদি মার্কিন হামলায় নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া মার্কিন প্রতিরক্ষা দপ্তর ওই অভিযানের একটি ভিডিও ফুটেজও প্রকাশ করে। পরবর্তী আইএসের পক্ষ থেকেও জানানো হয়, বাগদাদি নিহত হয়েছেন এবং নতুন নেতার নামও ঘোষণা করে জঙ্গি সংগঠনটি। যদিও অক্টোবরের ওই ঘোষণা অনুসারে আইএসের নতুন নেতা আবু ইব্রাহিম আল-হাশেমি আল-কুরাইশি। আইএসের নতুন মুখপাত্র আবু হামজা আল-কুরাইশি আইএসের গণমাধ্যম শাখা আল-ফুরকানে এক অডিও বার্তায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছিলেন।

কিন্তু ইরাকের গোয়েন্দা সংস্থা বলছে, বাগদাদির উত্তরসূরি হিসেবে যাঁদের বিবেচনা করা হচ্ছিল, তাঁদের একজন আবদুল নাসেরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাঁকে গ্রেপ্তারের পর তাঁর ছবিও প্রকাশ করা হয়েছে। আবদুল নাসেরকে এমন সময়ে গ্রেপ্তার করা হলো, যার এক মাস আগে ইরাকের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব নিয়েছেন দেশটির গোয়েন্দা সংস্থার সাবেক প্রধান মুস্তাফা আল-কাধিমি।

নাসেরকে গ্রেপ্তারের পর ইরাকের ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্স বলেছে, সঠিক গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। তবে এই বিষয়ে আইএসের কোনো বক্তব্য এখনো জানা যায়নি।

ইরাক ও সিরিয়ার বিশাল অঞ্চলজুড়ে আধিপত্য বিস্তার করে আসছিল জঙ্গিদের সংগঠন ইসলামিক স্টেট। এটি আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠন আল-কায়েদা থেকে বেরিয়ে এসে ২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। 

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন