default-image

টেলিফোনে চীনা কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে কৌশলে ৯০ বছর বয়সী এক নারীর কাছ থেকে ৩ কোটি ২০ লাখ মার্কিন ডলার হাতিয়ে নিয়েছে প্রতারক চক্র। কৌশলে বৃদ্ধার অ্যাকাউন্ট থেকে নিজেদের অ্যাকাউন্টে ডলার সরিয়ে নেয় তারা। এ ঘটনায় ১৯ বছরের এক তরুণকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। হংকংয়ে ফোন ব্যবহার করে এটাই সবচয়ে বড় অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার ঘটনা বলে জানিয়েছে পুলিশ।

গতকাল মঙ্গলবার পুলিশ জানিয়েছে, হংকংয়ে ধনীদের এলাকায় ‘দ্য পিক’ নামে একটি ম্যানশনে থাকেন ওই নারী। প্রতারকেরা এই নারীকে টার্গেট করে। গত গ্রীষ্মে প্রতারকেরা ওই নারীর সঙ্গে চীনের জননিরাপত্তা কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে ফোনে যোগাযোগ করে। তারা দাবি করে, তাঁর নাম চীনের মূল ভূখণ্ডে গুরুতর অপরাধীর তালিকায় উঠেছে।  

চলতি বছরের প্রথম তিন মাসে আগের তুলনায় প্রতারণা ১৮ শতাংশ বেড়েছে। এ সময় প্রতারকেরা হাতিয়ে নিয়েছে প্রায় ৩৫০ মিলিয়ন হংকং ডলার।

স্থানীয় পুলিশের বরাত দিয়ে ‘সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট’–এর প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, প্রতারক চক্র ওই বৃদ্ধাকে বলে, তাঁর অ্যাকাউন্টে থাকা অর্থের নিরাপত্তা ও বিষয়টির তদন্তের জন্য তদন্ত টিমের এক সদস্যের ব্যাংক অ্যাকাউন্টে ট্রান্সফার করতে হবে। এর কিছুদিন পর শুধু এই প্রতারকদের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য একটি মুঠোফোন ও একটি সিম কার্ড নিয়ে এক ব্যক্তি ওই বৃদ্ধার বাড়িতে হাজির হয়। তাঁকে মোট ১১ বারে তাঁর ব্যাংক হিসাব থেকে অর্থ ট্রান্সফার করতে হবে বলে বলা হয়। পরের পাঁচ মাসে ওই বৃদ্ধা ৩ কোটি ২০ লাখ মার্কিন ডলার প্রতারকের দেওয়া ব্যাংক হিসাব নম্বরে ট্রান্সফার করেন।

বিজ্ঞাপন

পুলিশ জানায়, সার্বিক বিষয় দেখে ওই বৃদ্ধার এক গৃহকর্মীর সন্দেহ হলে তিনি বৃদ্ধার মেয়ের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। তখন তাঁর মেয়ে বিষয়টি পুলিশকে জানান।
‘সাউথ চায়না মর্নিং পোস্ট’ বলছে, গ্রেপ্তার হওয়া তরুণ ওই বৃদ্ধার বাড়িতে গিয়ে যোগাযোগের জন্য তাঁকে মুঠোফোন দিয়ে এসেছিলেন। ওই তরুণ অবশ্য ইতিমধ্যে জামিনে মুক্তি পেয়েছেন।

সমৃদ্ধ হংকংয়ে ধনী-গরিবের বৈষম্য অত্যন্ত প্রকট। ধনকুবেরেরা দেশটিতে সবকিছুর কেন্দ্রবিন্দুতে থাকেন, তাঁদের অনেকে প্রাসাদতুল্য বাড়িতে তাঁরা বসবাস করেন।
চীনের আধা স্বায়ত্তশাসিত এ অঞ্চলে প্রায়ই বয়স্ক ধনী নাগরিকেরা এ ধরনের ফোন স্ক্যামের শিকার হন। তাঁদের ব্যাংক হিসাব থেকে অর্থ ট্রান্সফার বা বিনিয়োগ করতে বলা হয়।

আর এই দুর্বৃত্তদের একটি বড় অংশ চীনের। পুলিশ বলছে, দিন দিন এ ধরনের ঘটনা বাড়ছে। চলতি বছরের প্রথম তিন মাসে আগের তুলনায় প্রতারণা ১৮ শতাংশ বেড়েছে। এ সময় প্রতারকেরা হাতিয়ে নিয়েছে প্রায় ৩৫০ মিলিয়ন হংকং ডলার। ২০১০ সালে পুলিশ ১ হাজার ১৯৩টি ফোনে প্রতারণার ঘটনা পেয়েছে। ওই সব ঘটনায় চুরি হয় ৫৭৪ মিলিয়ন হংকং ডলার। গত বছরে একই ধরনের প্রতারণার ফাঁদে পড়ে ৬৫ বছর বয়সী এক নারী খুইয়েছিলেন ৬ কোাটি ৮৯ লাখ হংকং ডলার।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন