বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ইসরায়েলি নৌবাহিনীর এক কর্মকর্তাও এই মহড়ার বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেছেন। তিনি বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের পৃষ্ঠপোষকতায় এই ধরনের সামরিক সহযোগিতার সূচনা এই অঞ্চলে ইরানের প্রভাব–প্রতিপত্তি মোকাবিলায় সহায়তা করতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়, নৌ মহড়াটি পাঁচ দিন ধরে চলবে। নৌ মহড়ায় মার্কিন রণতরি ইউএসএস পোর্টল্যান্ড অংশ নিচ্ছে। এই যৌথ নৌ মহড়া অংশগ্রহণকারী বাহিনীগুলোর কার্যক্ষমতা বৃদ্ধি করবে।

যুক্তরাষ্ট্রের নৌবাহিনীর ভাইস অ্যাডমিরাল ব্র্যাড কুপার বলেন, এমন সামুদ্রিক সহযোগিতার বিষয়টি নৌ চলাচলের স্বাধীনতা ও বাণিজ্যের অবাধপ্রবাহ রক্ষায় সাহায্য করে, যা আঞ্চলিক নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতার জন্য অপরিহার্য।

সম্প্রতি ইসরায়েল পরিচালিত তেলের জাহাজে হামলা হয়। এই হামলার জন্য ইরানকে দায়ী করে ইসরায়েল। তবে হামলা দায় অস্বীকার করে ইরান।

সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইন গত বছর ইসরায়েলের সঙ্গে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্বাভাবিক করে। সম্পর্ক স্বাভাবিক করার এই প্রক্রিয়ায় মধ্যস্থতা করে যুক্তরাষ্ট্র। এই পদক্ষেপ ইরানের হুমকির ব্যাপারে পক্ষগুলোকে এক জোট করেছে।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন