বিজ্ঞাপন

যদিও দুই পক্ষের মধ্যে সমঝোতা ও সংঘর্ষ থামাতে যে আহ্বান আন্তর্জাতিক মহল জানিয়েছে, তা ইতিমধ্যে ব্যর্থ হয়েছে।

এদিকে ফিলিস্তিনের এলাকাগুলোয় হামলা আরও জোরদার করেছে ইসরায়েল। এ হামলা থেকে বাঁচতে হাজারো মানুষ গাজা ছাড়ছে। আজ শনিবার সকাল পর্যন্ত ইসরায়েলের হামলায় ৩৬ শিশুসহ ১৩৭ জন ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে প্রায় এক হাজার।

ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে সংঘর্ষ গাজার পর পশ্চিম তীরে ছড়িয়ে পড়েছে। সেখানে সংঘর্ষ শুরু হওয়ার পর কমপক্ষে ১০ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে প্রায় ১০০ জন। এসব হামলা থেকে বাঁচতে গাজার উত্তরাঞ্চলের জাতিসংঘের পরিচালিত স্কুলে আশ্রয় নিচ্ছে সাধারণ মানুষ। জাতিসংঘ বলেছে, ইসরায়েলের হামলা থেকে বাঁচতে প্রায় ১০ হাজার ফিলিস্তিনি বাড়িঘর ছেড়ে পালিয়েছে।

ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যে সংঘর্ষের শুরু গত সপ্তাহে। জেরুজালেমের আল-আকসায় পবিত্র জুমাতুল বিদা আদায়কে কেন্দ্র এই সংঘর্ষের সূত্রপাত। বলা হচ্ছে, বিগত কয়েক বছরের মধ্যে ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনিদের মধ্যে এটাই সবচেয়ে বড় সংঘর্ষের ঘটনা। বড় ধরনের সংঘর্ষের সূচনা হয় গত সোমবার পূর্ব জেরুজালেমে। সেই সংঘর্ষ অব্যাহত রয়েছে।

সোমবারে ওই সংঘর্ষের সূচনার পর থেকে এ পর্যন্ত দুই হাজার রকেট ছোড়া হয়েছে ফিলিস্তিন থেকে। এসব হামলায় এক সেনা, এক শিশুসহ ৯ জন নিহত হয়। আর আহত হয় প্রায় সাড়ে ৫০০ জন। এসব হামলার জবাবে ৮০০টি স্থান লক্ষ্য করে হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন