বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বার্তা সংস্থা এএফপির খবরে বলা হয়েছে, ইয়াঙ্গুনে ইনসেইন কারাগারের ভেতরে এই বিশেষ আদালত বসেছিল। গতকাল কারাদণ্ড পাওয়া এনএলডির কেন্দ্রীয় কমিটির দুই সদস্য হলেন অর্থনৈতিক উপদেষ্টা হান থার মিন্ট এবং থেইন উ। মামলার ঘনিষ্ঠ এক আইনজীবী এ তথ্য জানিয়েছেন।

এসব আদালতে কীভাবে বিচার কাজ পরিচালনা করা হচ্ছে তা ঠিকঠকা জানা যাচ্ছে না। কারণ, এসব আদালত কার্যক্রমে সাংবাদিকদের প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না।

গত ১ ফেব্রুয়ারি জান্তা ক্ষমতা দখলের পর থেকে মিয়ানমারে সু চির দলের নেতাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এ ছাড়া সু চিকেও বিচারের মুখোমুখি করা হয়েছে। সু চির বিরুদ্ধে জান্তা সরকারের দায়ের করা মামলাগুলোর মধ্যে উসকানি ও করোনোর বিধিনিষেধ লঙ্ঘনের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় ৭ ডিসেম্বর রায় ঘোষিত হয়। এই রায়ে সু চি দোষী সাব্যস্ত হন। তিনি একটি অজ্ঞাত স্থানে দুই বছরের সাজা ভোগ করছেন।

এদিকে মিয়ানমারে সম্প্রতি সেনাবাহিনীর সহিংসতা বেড়ে যাওয়ায় দেশটির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের প্রস্তুতি নিচ্ছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। গতকাল ইইউর শীর্ষ কূটনীতিকেরা দেশটির ওপর আন্তর্জাতিক অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা আরোপেরও আহ্বান জানিয়েছেন।

এশিয়া থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন