বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গতকাল শনিবার তাইপের সাবেক মেয়র এরিক তাইওয়ানের বিরোধী দলের নেতা নির্বাচিত হন। এরিককে অভিনন্দন জানিয়ে রোববার চিঠি লেখেন সি চিন পিং। চিঠিতে চীনা প্রেসিডেন্ট লেখেন, ‘এই মুহূর্তে তাইওয়ানের পরিস্থিতি বেশ জটিল ও ভয়াবহ। চীনের ছেলেমেয়েদের এক হৃদয় নিয়ে একযোগে কাজ করতে হবে। একসঙ্গে এগিয়ে যেতে হবে।’

চীনা কমিউনিস্ট পার্টি ও কেএমটির সহযোগিতার ভিত্তিতে কার্যক্রম পরিচালনা করবে বলে চিঠিতে আশা প্রকাশ করেন সি চিন পিং। তিনি লেখেন, ‘তাইওয়ানে শান্তি ফেরানো, জাতীয় পুনর্মিলন ও পুনরুজ্জীবনের জন্য পারস্পরিক সহযোগিতার ভিত্তিতে দুই দলকে কাজ করতে হবে।’ কেএমটির পক্ষ থেকে সি চিন পিংয়ের চিঠির একটি কপি প্রকাশ করা হয়েছে।

এরিক চু ২০১৬ সালে তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে লড়েছিলেন। তবে বর্তমান প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েনের কাছে পরাজিত হন। সাই ইং-ওয়েনের ডেমোক্রেটিক প্রোগ্রেসিভ পার্টির (ডিপিপি) কারণে তাইওয়ানে চীনবিরোধী নীতির কারণে তাইওয়ানে শান্তি ফিরছে না বলে অভিযোগ এরিকের।

এর আগে ২০১৫ সালে এরিক চীন সফরে গিয়ে সি চিন পিংয়ের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছিলেন। ওই সময় এরিক চীনা সরকারের সঙ্গে পারস্পরিক শ্রদ্ধা ও সহযোগিতার সম্পর্ক প্রতিষ্ঠা ও শান্তিপূর্ণ উন্নয়ন এগিয়ে নিতে একযোগে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

চীন বরাবরই তাইওয়ানকে নিজেদের সার্বভৌম ভূখণ্ডের অংশ মনে করে। নিজ ভূখণ্ডের আওতায় আনতে তাইওয়ানের ওপর রাজনৈতিক, সামরিক চাপ বাড়িয়েছে চীন। এমনকি তাইওয়ান নিয়ে পশ্চিমা দেশগুলোর কোনো ধরনের হস্তক্ষেপ মানতে নারাজ সি চিন পিং। যদিও তাইওয়ানের নাগরিকদের অনেকেই বেইজিংয়ের নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার বিপক্ষে।

চীন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন