default-image

কোরীয় উপদ্বীপে শান্তি স্থাপন করতে চাইছে দক্ষিণ কোরিয়া। তাই চীনের সঙ্গে লড়াই থামিয়ে একসঙ্গে কাজ করতে চায় দেশটি। চীনেরও চাওয়া একই।

গতকাল বৃহস্পতিবার দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জে-ইন বলেছেন, লড়াই থামাতে ও কোরিয়া উপদ্বীপে দীর্ঘ মেয়াদে শান্তি স্থাপনে তিনি কাজ চালিয়ে যাবেন। দেশটির প্রেসিডেন্টের দপ্তর এ তথ্য জানিয়েছে। বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞাপন

রয়টার্স জানিয়েছে, বর্তমানে দক্ষিণ কোরিয়া সফরে রয়েছেন চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই। তাঁর সঙ্গে বৈঠক করেছেন দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট। বৈঠক শেষে শান্তি স্থাপনের কথা বলেছেন তিনি।
দক্ষিণ কোরিয়ার ব্লু হাউসের বিবৃতিতে বলা হয়, করোনাভাইরাসের মহামারি কাটাতে দ্বিপক্ষীয় চুক্তির মাধ্যমে অংশীদারি বন্ধন আরও দৃঢ় হবে।

কোরীয় উপদ্বীপে উত্তেজনা প্রশমন এবং আঞ্চলিক শান্তি ও স্থিতিশীলতার জন্য দীর্ঘদিন ধরেই আলোচনা চলছে। আল–জাজিরার এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওয়াংয়ের সফরের সময় উত্তর কোরিয়ার পরমাণু কর্মসূচি নিয়ে স্থগিত আলোচনা আবার শুরু করতে সম্মত হয়েছে দুই দেশ। তা ছাড়া চীনের প্রেসিডেন্ট সি চিন পিংয়ের দক্ষিণ কোরিয়া সফরের প্রস্তুতির বিষয়েও সিউলকে অবহিত করেছেন ওয়াং।

চীনের শীর্ষ কূটনীতিক হিসেবে ওয়াংয়ের সফরের জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশের পাশাপাশি কোরীয় শান্তিপ্রক্রিয়ায় গঠনমূলক ও সহযোগী ভূমিকা রাখায় বেইজিংকে ধন্যবাদ জানান মুন।

মন্তব্য করুন