default-image

সবার সামনে রাস্তায় স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা করেছেন এক স্বামী। গত শনিবার স্থানীয় সময় সকালে ঘটনাটি ঘটেছে চীনের এসইহাওজৌ শহরে। বলা হচ্ছে, স্ত্রীকে পেটানোর সময় আশপাশে অনেক পথচারী উপস্থিত ছিলেন। কিন্তু কেউই ওই নারীকে বাঁচাতে এগিয়ে আসেনি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে বলা হয়েছে, গত শনিবার সকালে এসইহাওজৌ শহরের রাস্তায় বিবাহিত ওই দম্পতির বিদ্যুচ্চালিত স্কুটারের সঙ্গে আরেকটি যানের সংঘর্ষ হয়। এরপরই ওই নারীকে পেটান তাঁর স্বামী। এ ঘটনার ভিডিও ও স্থিরচিত্র এরই মধ্যে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

বিজ্ঞাপন

চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমের খবরে জানানো হয়েছে, সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে স্থানীয় পুলিশ। এক বিবৃতিতে পুলিশ জানিয়েছে, ওই নারীকে হত্যার ঘটনার পূর্ণ তদন্ত হচ্ছে। পুলিশ বলেছে, ‘সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। পুরো ঘটনার পুঙ্খানুপুঙ্খ তদন্ত হচ্ছে।’

প্রকাশিত ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে, ওই নারীকে যখন তাঁর স্বামী পেটাচ্ছিলেন, তখন আশপাশে অনেক সাইকেলারোহী ও পথচারী ছিলেন। কিন্তু কেউই এ ঘটনার প্রতিকারে কেউই এগিয়ে আসেননি। বরং বেশির ভাগ মানুষই দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে তা দেখছিলেন।

এদিকে এ ঘটনায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। মূলত অকুস্থলে থাকার পরও ঘটনার প্রতিবাদ না করার বিষয়টির নিন্দা হচ্ছে।

পারিবারিক সহিংসতার বিরুদ্ধে ২০১৫ সালে একটি আইন প্রণয়ন করা হয়েছিল চীনে।

অধিকারকর্মীরা বলছেন, পারিবারিক সহিংসতার ঘটনা চীনে প্রায়ই অবহেলিত থাকে।

মন্তব্য পড়ুন 0