default-image

যুক্তরাষ্ট্রের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তি ও সরকার উৎখাতে ষড়যন্ত্রের অভিযোগে তুরস্কের একটি আদালত আজ মঙ্গলবার মেটিন টোপাজ নামের যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাসে কর্মরত এক ব্যক্তির বিচার শুরু করেছেন। এ ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্র ও তার ন্যাটো মিত্রদেশটির মধ্যে উদ্বেগ বাড়ছে। বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

মেটিন টোপাজ তুরস্কের নাগরিক। তাঁর বিরুদ্ধে তুরস্কের অভিযোগ, টোপাজ যুক্তরাষ্ট্রের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তি করেছেন এবং তিনি দেশটির নিরাপত্তা ভন্ডুলের চেষ্টা করেছেন। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ড্রাগ এনফোর্সমেন্ট অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের হয়ে যোগাযোগ রাখতেন। ২০১৭ সালে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসকারী ধর্মীয় নেতা ফেতুল্লা গুলেনের সঙ্গে সম্পর্ক রেখেছিলেন তিনি।

সেনা অভ্যুত্থানের পেছনে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসকারী ধর্মীয় নেতা ফেতুল্লা গুলেনকে দায়ী করেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান; যদিও গুলেন ও তাঁর সমর্থক যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংগঠন এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

যুক্তরাষ্ট্র ও তুরস্কের মধ্যে সিরিয়া যুদ্ধ নিয়ে তীব্র মতভেদের মধ্যেই এ বিচারকাজ শুরু হচ্ছে। রাশিয়ার কাছ থেকে তুরস্কের ক্ষেপণাস্ত্র ক্রয় ও গুলেনের প্রত্যাবর্তনে যুক্তরাষ্ট্রের নারাজির বিষয়টিও দুই দেশের সম্পর্কে দূরত্ব বাড়িয়েছে।

ইস্তাম্বুলের কাগলায়ানের একটি আদালতে মেটিন টোপাজের শুনানি শুরু হচ্ছে। তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত হলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা হতে পারে।

এ অভিযোগকে ভিত্তিহীন বলেছে মার্কিন দূতাবাস।

বিজ্ঞাপন
ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন