বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের খবরে বলে হয়, রাইনল্যান্ড-পালাটিনেট প্রদেশের আরভেইলার জেলায় বন্যায় চারজনের মৃত্যুর পাশাপাশি বহু মানুষ নিখোঁজ হয়েছে। নদীর পানি তীর উপচে লোকালয়ে প্রবেশের পর বাড়িঘরের ভেতর আটকা পড়া প্রায় ৫০ জন ছাদে আশ্রয় নিয়েছে। এ ছাড়া নর্থ রাইন-ওয়েস্টফেলিয়া প্রদেশে ফায়ার সার্ভিসের দুই কর্মীর মৃত্যু হয়েছে।

স্থানীয় পুলিশের এক মুখপাত্র রয়টার্সকে জানান, অনেক মানুষ অবস্থান নিয়েছে বাড়ির ছাদে। তবে সেখানে মোট কতজন অবস্থান করছে, তা এখনো পরিষ্কার নয়। অনেক এলাকায় ফায়ার সার্ভিস ও উদ্ধারকারী দলের সদস্যদের পাঠানো হয়েছে। উদ্ধারকাজ এখনো চলছে, শেষ হলে প্রকৃত অবস্থা জানা যাবে।

এদিকে বন্যার কারণে রাইন নদীতে নৌ চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। বাধা পড়েছে স্থানীয় রেল, সড়ক ও নৌ যোগাযোগব্যবস্থাতে। ভারী বৃষ্টির কারণে অনেক এলাকায় প্রবেশ করা যাচ্ছে না। জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে প্রদেশের ভুলকানাইফেল জেলায়।

বুধবার ডাউন শহরের জেলা প্রশাসক জুলিয়া গিয়েজেকিং জার্মান সংবাদমাধ্যম ডয়চে ভেলেকে বলেন, ‘পরিস্থিতি খুবই খারাপ। অনেক রাস্তা বন্যার পানিতে ঢাকা পড়েছে। গ্রামগুলোতে প্রবেশ করা যাচ্ছে না।’

স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার সকালে জার্মান আবহাওয়া বিভাগের এক পূর্বাভাসে বলা হয়, আজ সারা দিন দক্ষিণ-পশ্চিম জার্মানিতে ভারী ঝড়বৃষ্টির আশঙ্কা করা হচ্ছে। এ অঞ্চলের এলাকাগুলোতে শুক্রবার সন্ধ্যা পর্যন্ত টানা বৃষ্টি ঝরবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন