বিজ্ঞাপন

কোলন শহরের পুলিশ জানিয়েছে, মৃত্যুর সংখ্যা আরও বাড়তে পারে। বন্যাপীড়িত এলাকায় প্রায় দেড় লাখ মানুষ বিদ্যুৎবিহীন অবস্থায় রয়েছে। উদ্ধারকাজ চালাতে গিয়ে ফায়ার সার্ভিসের দুজন কর্মী নিহত হয়েছেন।

বুধবার সন্ধ্যায় ও বৃহস্পতিবার ভোররাতে ভারী বৃষ্টিপাত ও ঝোড়ো হাওয়াই আহরওয়াইলার আইফেল শহরে বেশ কয়েকটি পুরোনো স্থাপত্য ধসে পড়েছে। বেশ কিছু লোক এখনো নিখোঁজ। নর্থ রাইন ওয়েস্টপেলিয়া ও রাইনল্যান্ড-পালাটিনেট প্রদেশে উদ্ধারকাজ চালিয়ে যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার ভোররাতে লেবারকুসন নামে বেসরকারি একটি ক্লিনিক বিদ্যুৎবিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

কোবলেঞ্ছ শহরের একজন মুখপাত্র জানিয়েছেন, আহরওয়াইলার পুরো জেলা ঝড়ের কবলে পড়েছিল। সেখানে প্রায় ৫০ জন লোক ছাদে আশ্রয় নিলে পুলিশ তাঁদের উদ্ধার করে। সর্বত্র আবর্জনা জমে রয়েছে বলে এই মুখপাত্র জানিয়েছেন।

জার্মান সেনাবাহিনী নর্থ রাইন ওয়েস্টপেলিয়া এলাকার বন্যাকবলিত এলাকায় বৃহস্পতিবার সকাল থেকে উদ্ধার অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে। বেশ কিছু এলাকার রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকা গাড়িগুলো পানিতে ভেসে যেতে দেখা গেছে।

ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের পাশে থাকার আহ্বান জানিয়েছেন জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন