default-image

এক ভিডিও ভাইরালের জেরে তুরস্কের একটি দুগ্ধজাত পণ্য তৈরির কারখানা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। ওই ভিডিওতে দেখা যায়, কারখানার মধ্যে দুধ রাখার গামলায় ‘দুধ’ দিয়ে পুরোদস্তুর গোসল করছেন এক ব্যক্তি। যদিও কারখানা কর্তৃপক্ষের দাবি, তা দুধ ছিল না।

তুরস্কের সংবাদমাধ্যম হুরিয়াত ডেইলি নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়, সেন্ট্রাল আনাতোলিয়া প্রদেশের কোনিয়া শহরে কারখানাটি অবস্থিত। সেখানকার স্থানীয় নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ কারখানাটি ইতিমধ্যে বন্ধ করে দিয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত দুই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন


সম্প্রতি ১১ সেকেন্ডের ওই ভিডিও প্রথমে ভিডিও শেয়ারিং প্ল্যাটফর্ম টিকটকে আপলোড করা হয়। পরে তা অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমেও ছড়িয়ে পড়ে।

ভিডিওতে দেখা গেছে, এক ব্যক্তি সাদা রঙের তরলে পরিপূর্ণ গামলায় গা এলিয়ে গোসল করছেন। জানা গেছে, গোসল করা ওই ব্যক্তির নাম এমরে সায়ার। তাঁকে ও টিকটকে ভিডিওটি আপলোড করা উর তারগুতকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
অবশ্য কারখানা কর্তৃপক্ষ দাবি করেছে, তাদের প্রতিষ্ঠানের সুনাম নষ্ট করতে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ওই ভিডিও করা হয়েছে। এ ছাড়া ভিডিওতে দুধ হিসেবে যা দেখা যাচ্ছে, তা আসলে দুধ নয়। দুধের মতো দেখতে এ তরল পদার্থ দিয়ে তাদের কারখানার বয়লারগুলো ধোয়া হয়।

এ ঘটনায় তুরস্কের কোনিয়ার কৃষি ও বনায়ন বিভাগের ব্যবস্থাপক আলি এরগিন একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছেন। আলি এরগিন জানিয়েছেন, ভিডিওতে দেখা পারিপার্শ্বিকতা বিবেচনায় কারখানাটি বন্ধ করা হয়েছে। কারখানা কর্তৃপক্ষকে জরিমানাও করা হয়েছে।

মন্তব্য পড়ুন 0