বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, ১৯ অক্টোবর সকালের দিকে ৩৫ বছর বয়সী ওই ব্যক্তির মৃতদেহটি দেখতে পান দূতাবাসের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশ কর্মকর্তারা। নিরাপত্তাবাহিনীর সূত্রের বরাত দিয়ে বলা হয়, ওই ব্যক্তি দূতাবাসের ওপরের তলা থেকে পড়ে গিয়েছিলেন। পুলিশ কর্মকর্তারা তাৎক্ষণিকভাবে একটি অ্যাম্বুলেন্স ডাকলেও চিকিত্সকেরা তাকে বাঁচাতে পারেনি।

রাশিয়ান দূতাবাস দেশটির বার্তা সংস্থা ইন্টারফ্যাক্সকে দেওয়া এক বিবৃতিতে মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। তারা বলেছে একজন রাশিয়ান কূটনীতিক মারা গেছেন তবে ‘নৈতিক কারণে এই মর্মান্তিক ঘটনা নিয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি নয় তারা ।’

বার্লিন পুলিশ এই বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। নিরাপত্তা সূত্রের বরাত দিয়ে দ্য স্পিগেল জানিয়েছে, ওই কূটনীতিক কীভাবে ওপর থেকে পড়েছিলেন এবং কী কারণে তার মৃত্যু হয়েছে তা স্পষ্ট নয়। অপরদিকে রাশিয়ান দূতাবাস তাঁর ময়নাতদন্ত করাতে রাজি হয়নি বলে জানা গেছে।

ইন্টারফ্যাক্সকে দেওয়া বিবৃতিতে দূতাবাস জানায়, কূটনীতিকের মৃতদেহ প্রত্যাবাসনের জন্য সকল আনুষ্ঠানিকতা জার্মানির দায়িত্বশীল আইন প্রয়োগকারী সংস্থা পালন করেছে। নিহত কূটনীতিকের নাম প্রকাশ না করলেও তিনি দূতাবাসের দ্বিতীয় সচিব ছিলেন বলে জানা গেছে। তিনি রাশিয়ান গোয়েন্দা সংস্থা ফেডারেল সিকিউরিটি সার্ভিস-এফএসবির জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তার আত্মীয় ছিলেন।

জার্মান পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন মুখপাত্র শুক্রবার নিয়মিত সংবাদ ব্রিফিংয়ে বলেছেন, জার্মান সরকার বার্লিনে একজন রুশ কূটনীতিকের মৃত্যুর বিষয়ে অবগত ছিল। তবে এ বিষয়ে বিস্তারিত কোনো তথ্য জানায়নি তাঁরা।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন