বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি জেন সাকি বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র রাশিয়ায় নতুন বিনিয়োগ নিষিদ্ধ করতে পারে। রাশিয়ার আর্থিক প্রতিষ্ঠানের ওপর আরও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করতে পারে দেশটি। পাশাপাশি ক্রেমলিনের কর্মকর্তা ও তাঁদের পরিবারের সদস্যদের ওপরও জারি হতে পারে নিষেধাজ্ঞা।

দ্য ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পুতিনের দুই মেয়ে এবং রাশিয়ার বৃহত্তম ব্যাংক সোবারব্যাংকের ওপর বাড়তি নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার কথা ভাবছে ওয়াশিংটন।

ইউরোপীয় ইউনিয়নের দূতেরা আজ বুধবার রাশিয়ার ওপর পঞ্চম ধাপের নিষেধাজ্ঞা আরোপের পরিকল্পনা নিয়ে পর্যালোচনা করবেন। ওই পরিকল্পনা অনুযায়ী, রাশিয়ার কয়লা আমদানি নিষিদ্ধ করার কথা ভাবছে ইইউ। রাশিয়ার মালিকানাধীন ও পরিচালনাধীন বেশির ভাগ জাহাজকে ইইউর বন্দর ব্যবহার থেকে প্রতিহত করার কথাও ভাবা হচ্ছে।

ইউক্রেনে হামলার শুরুর পর থেকে রাশিয়ার বিরুদ্ধে একের পর এক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে আসছে পশ্চিমা বিশ্ব। রাশিয়ার পণ্য, সেবা, সম্পত্তি, ব্যাংক রিজার্ভ, লেনদেন, গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও সরকারি কর্মকর্তাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হচ্ছে। তবে রাশিয়ার দাবি, ইউক্রেনকে আনুষ্ঠানিকভাবে নিরপেক্ষ রাষ্ট্র ঘোষণা করতে হবে এবং ইউক্রেন কখনোই মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো জোটে যোগ দিতে পারবে না।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন