রাশিয়ায় প্রথমবারের মতো মানুষের শরীরে এইচফাইভএনএইট বার্ড ফ্লুর সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।
রাশিয়ায় প্রথমবারের মতো মানুষের শরীরে এইচফাইভএনএইট বার্ড ফ্লুর সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে।ছবি: রয়টার্স

রাশিয়ায় প্রথমবারের মতো মানুষের শরীরে বার্ড ফ্লুর নতুন ধরন এইচফাইভএনএইটের সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। পশুপাখি থেকে এই বার্ড ফ্লু মানুষের শরীরে সংক্রমিত হয়েছে।

বার্ড ফ্লুর অন্য ধরনগুলো মাঝেমধ্যে মানুষের শরীরে সংক্রমিত হয়ে থাকে। অনেক সময় এতে সংক্রমিত হয়ে মৃত্যুও হতে পারে। তবে এইচফাইভএনএইট নামের ধরনটি মানুষের শরীরে সংক্রমিত হওয়ার ঘটনা এটাই প্রথম।

বিবিসির আজ রোববারের খবরে জানা যায়, রাশিয়ার দক্ষিণে একটি পশুখামারের সাতজন কর্মী বার্ড ফ্লুর ওই নতুন ধরনে সংক্রমিত হয়েছেন। রাশিয়ার স্বাস্থ্যবিষয়ক ওয়াচডগের প্রধান আনা পোপোভা বলেন, ওই সাতজন সুস্থ আছেন। তিনি বলেন, সংক্রমণরোধে দ্রুত কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। মানুষ থেকে মানুষে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার কোনো লক্ষণ দেখা যায়নি বলেও জানান পোপোভা। তিনি বলেন, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে বিষয়টি জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

গুরুত্বপূর্ণ বৈজ্ঞানিক আবিষ্কারের জন্য রাশিয়ার ভেক্তর গবেষণাগারের প্রশংসা করেন পোপোভা। সংক্রমিত কর্মীদের কাছ থেকে বার্ড ফ্লুর এই ধরনের জিনগত তথ্য ওই গবেষণাগারে আলাদা করা হয়। পোপোভা বলেন, ভেক্তরের গবেষণা থেকে জানা গেছে, রূপান্তরিত বার্ড ফ্লু ভাইরাস মানুষ থেকে মানুষের শরীরে সংক্রমিত হওয়ার মতো সক্ষমতা এখনো অর্জন করতে পারেনি। ভাইরাসটির আরও যেসব রূপান্তর হতে পারে, তা প্রতিরোধের জন্য বিশ্বকে প্রস্তুতি নিতে হবে।

পোপোভা মনে করেন, রুশ বিজ্ঞানীরা ভাইরাস শনাক্তে উন্নত পদ্ধতিতে পরীক্ষার কাজ শুরু করতে পারেন।

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন