বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

এ পরিস্থিতিতে স্থানীয় সময় বুধবার ভোরে ওই দুর্গ থেকে ভিডিও বার্তা দেন মেরিন কমান্ডার মেজর সেরহি ভলিনা। তিনি বলেন, তাঁর সেনারা আত্মসমর্পণ করবেন না। তবে তাঁদের হাতে হয়তো আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা সময় আছে।

মেজর ভলিনা ৩৬ মেরিন ব্রিগেডের কমান্ডার। গত সপ্তাহে রাশিয়ার পক্ষ থেকে জানানো হয়, এই ব্রিগেডের ১ হাজার ২৬ সেনা মারিউপোলে তাদের কাছে আত্মসমর্পণ করেছেন, যাঁদের মধ্যে ১৬২ জন কর্মকর্তা রয়েছেন।

গত সপ্তাহে এই ব্রিগেডের দুই ব্রিটিশ সেনা এইডেন এসলিন ও শন পিনার রুশ বাহিনীর হাতে আটক হন। ইস্পাত কারখানায় অবস্থান নিয়ে থাকা আরেকটি সেনাদল হলো আজভ ব্রিগেড। মারিউপোল শহর ও কৃষ্ণসাগরের সঙ্গে সংযোগ ঘটানো আজভ সাগরের নামে এ ব্রিগেডের নামকরণ করা হয়েছে।

এ আজভ ব্রিগেড মূলত ডানপন্থী জাতীয়তাবাদী মিলিশিয়া, যারা পরে ইউক্রেনিয়ান ন্যাশনাল গার্ডের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে। এ ব্রিগেডের সদস্যসংখ্যা আনুমানিক ৯০০। গত সপ্তাহে মারিউপোলে আজভ ব্রিগেডের সঙ্গে মেরিন সেনারা যুক্ত হন। তবে ইস্পাত কারখানায় ঠিক কত ইউক্রেনিয়ান সেনা আছেন, তা এখনো স্পষ্ট নয়।

গত মঙ্গলবার আজভ ব্রিগেডের এক টেলিগ্রাম পোস্টে বলা হয়, ‘আমরা লড়াই করে যাব। আমাদের কাছে থাকা প্রতিটি কার্তুজ ব্যবহার করব। তবে বেসামরিক নাগরিকদের রক্ষা এবং আহত ব্যক্তিদের সরিয়ে নিতে মাতৃভূমির প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।’

ইউরোপ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন