default-image

রাহুল গান্ধী আগামী এপ্রিল মাসেই ভারতের জাতীয় কংগ্রেস দলের সভাপতির দায়িত্ব নিতে যাচ্ছেন বলে দলটির উচ্চপর্যায়ের সূত্র জানিয়েছে। পার্লামেন্টে গুরুত্বপূর্ণ বাজেট অধিবেশনের মধ্যে রাহুলের ছুটি কাটানোর সময় এ খবর এল। খবর এনডিটিভির।
দলীয় সূত্রের বক্তব্য সত্যি হলে কংগ্রেস সহসভাপতি রাহুল তাঁর মা ইতালীয় বংশোদ্ভূত সোনিয়া গান্ধীর পদে বসবেন। সোনিয়া ১৯৯৮ সাল থেকে কংগ্রেসের সভাপতি পদে আছেন। দলটির সূত্র বলছে, এপ্রিল মাসে সর্বভারতীয় কংগ্রেস কমিটির অধিবেশনে রাহুলকে সভাপতি পদে দায়িত্ব দেওয়া হবে।
১৩০ বছরের পুরোনো দল কংগ্রেসের সভাপতির পদে বসার প্রস্তুতি হিসেবে রাহুল বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করেছেন।
কংগ্রেস মুখপাত্র রণদীপ সিং সুরজওয়ালা গত মঙ্গলবার বলেন, রাহুল আগামী ১০ মার্চের মধ্যেই ‘ছুটি’ কাটিয়ে ফিরবেন।
নেহরু-গান্ধী বংশের চতুর্থ প্রজন্মের প্রতিনিধি রাহুল প্রত্যক্ষ রাজনীতিতে নামা বেশ কিছুদিন এড়িয়ে চলেন। রাজনীতিতে যোগ দেওয়ার পর ২০১৩ সালে কংগ্রেসের সহসভাপতি হন তিনি। তবে দলের দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকে সফলতার মুখ দেখেননি। নির্বাচনী প্রচারণায় নেতৃত্ব দিয়ে একের পর এক পরাজয়ের স্বাদ পেয়েছেন। এর ধারাবাহিকতায় গেল লোকসভা নির্বাচনে ভরাডুবি হয় কংগ্রেসের।
কোথায় রাহুল?: গত সোমবার রাহুল দল থেকে ছুটি নেওয়ার পর তিনি কোথায় যাচ্ছেন, তা নিয়ে বেশ কৌতূহল সৃষ্টি হয়। কংগ্রেসের নেতারা বলেন, রাহুল ভাবনাচিন্তার জন্য দল থেকে সময় চেয়েছেন। তাঁরা এ-ও বলেছেন, তিনি রাজনীতি ছাড়ছেন না।
গতকাল বুধবার এক কংগ্রেস নেতা বলেন, রাহুল বিদেশে আছেন। জীবনের এক নতুন যাত্রা শুরু করতে তিনি আত্মোপলব্ধির জন্য সময় চেয়েছেন।
তবে কংগ্রেসের নেতা জগদীশ শর্মা সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম টুইটারে রাহুলের তিনটি ছবি দিয়ে লিখেছেন, তিনি সব সময় উত্তরাখন্ডের পাহাড়ি এলাকায় যেতে পছন্দ করেন, ব্যাংককে নয়।
ছবিতে দেখা যায়, শীতের পোশাক পরা রাহুল ফোনে কথা বলছেন। ছবিটি দেখে তা কোনো পাহাড়ি এলাকায় তোলা বলে মনে হয়।

বিজ্ঞাপন
ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন