default-image

পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে করোনা চিকিৎসায় লাগামহীন খরচের বিলের রাশ টানতে কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছেন এক সমাজসেবী।

গৌতম পুরকাইত নামের ওই ব্যক্তি গতকাল বুধবার কলকাতা হাইকোর্টে লাগামহীন এই বিলের বিরুদ্ধে জনস্বার্থ মামলা করেছেন।

গৌতম পুরকাইতের আরজি, করোনা খরচের বিলের ওপর লাগাম টানতে কলকাতা হাইকোর্ট রাজ্যের সব হাসপাতালকে অবিলম্বে নির্দেশ প্রদান করুন।

মামলাটি করা হয়েছে কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি থোট্টাথিল ভাস্করণ নায়ার রাধাকৃষ্ণনের ডিভিশন বেঞ্চে।

আবেদনকারীর পক্ষে মামলাটি করেন আইনজীবী শুভজিৎ বল ও আইনজীবী দেবাশীষ সাহা। ৭ আগস্ট মামলাটির শুনানি হতে পারে বলে জানিয়েছেন আবেদনকারীর আইনজীবীরা।

আবেদনকারীর আইনজীবীরা বলেন, রাজ্যের কোভিড-সংক্রমিত রোগীরা যাতে সুচিকিৎসা পান, চিকিৎসার জন্য ভর্তি হতে পারেন, খরচের ব্যয়ভার যাতে লাগামহীন না হয়, এ নির্দেশ দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী বেসরকারি হাসপাতালে কোভিড নমুনা পরীক্ষার জন্য একটি নির্দিষ্ট অর্থ গ্রহণের নির্দেশ দিলেও তা মানা হচ্ছে না। বরং বেসরকারি হাসপাতালগুলো নিজেদের ইচ্ছামতো বিল করছে। লাগামহীন বিল করে নিঃস্ব করে দিচ্ছে রোগীর পরিবারকে।

আবেদনকারীর আইনজীবীরা বলেন, বেসরকারি হাসপাতালে করোনা বেড ফাঁকা থাকলেও রোগীদের ভর্তি নিচ্ছে না। রাজ্য সরকারের নির্দেশ ছিল প্রতিদিন কতটি বেড ফাঁকা থাকে, তা হাসপাতালের অনলাইনে জানাতে হবে। কিন্তু সেই নির্দেশ আদৌ মানছে না বেসরকারি হাসপাতাল। তা ছাড়া সম্প্রতি রাজ্যের স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কমিশন এ-সংক্রান্ত ৭ দফা নির্দেশ জারি করলেও তা উপেক্ষা করছে বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতাল। তাই কলকাতা হাইকোর্টে এই জনস্বার্থ মামলা করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য করুন