default-image

চীনের আটক সেনাসদস্যকে হস্তান্তর করেছে ভারত। ভারত গতকাল মঙ্গলবার রাতে তাঁকে চীনের কাছে হস্তান্তর করে। আজ বুধবার এনডিটিভি অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

চীনের ওই সেনাসদস্যের নাম ওয়াং ইয়া লং। তিনি চীনা সেনাবাহিনীতে করপোরাল পদে কর্মরত।

ভারতীয় কর্তৃপক্ষ গত সোমবার জানায়, পথ হারিয়ে ওই চীনা সেনা ভারত ও চীনের মধ্যকার প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা (এলএসি) অতিক্রম করে পূর্ব লাদাখে ঢুকে পড়েন। তাঁকে পূর্ব লাদাখের চুমার-ডেমচক এলাকা থেকে আটক করে ভারতী বাহিনী।

বিজ্ঞাপন

সোমবার ভারতীয় সেনাবাহিনী এক বিবৃতিতে জানায়, যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরণ করে প্রটোকল অনুযায়ী চীনের আটক সেনাকে দেশটির সেনাবাহিনীর কাছে ফেরত পাঠানো হবে। চীনের আটক সেনাসদস্যকে অক্সিজেন, খাবার, চিকিৎসাসেবা, গরম কাপড় ইত্যাদি দেওয়া হয়েছে।

পরে চীনের সামরিক বাহিনী নিশ্চিত করে যে তাদের এক সেনাসদস্য ভারতীয় বাহিনীর হাতে আটক হয়েছেন। প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী তাঁকে ফেরত দিতে ভারতের প্রতি আহ্বান জানায় চীন।

ভারতীয় সূত্র জানায়, চাইনিজ পিপলস লিবারেশন আর্মির (পিএলএ) কাছে ওই সেনাসদস্যকে ফেরত দেওয়ার আগে তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করেন চীনা বিশেষজ্ঞরা।

গত মে মাস থেকে এলএসি বরাবর দুই দেশের সেনাদের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। গত জুন মাসে লাদাখের গালওয়ান উপত্যকায় দুই দেশের সেনারা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে জড়ান। এই সংঘর্ষে ভারতের ২০ সেনা নিহত হন। চীনের পক্ষেও হতাহত হওয়ার ঘটনা ঘটে। তবে তারা তা স্বীকার করেনি। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই দেশের মধ্যে সীমান্ত উত্তেজনা চরম আকার ধারণ করে। পরে অবশ্য উত্তেজনা কমাতে দুই দেশ নানা পর্যায়ে দফায় দফায় আলোচনা চালায়।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0