বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

রোববার কলকাতা পৌরসভার ১৪৪টি ওয়ার্ডে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ নির্বাচনে বিজেপির নেতা–কর্মী ও প্রার্থীদের ওপর বিভিন্ন জায়গায় হামলার অভিযোগ করেছে দলটি। এ ছাড়া কংগ্রেস ও বাম সমর্থকদেরও ভোট দিতে দেওয়া হয়নি বলে অভিযোগ করেছেন দলগুলোর নেতা–কর্মীরা।

নির্বাচনের আগে তৃণমূল থেকে ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল, এবারের পৌর ভোটে কোনো অনিয়ম প্রশ্রয় দেওয়া হবে না। এ ছাড়া নির্বাচনে কেউ কারচুপি ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করলে তাঁকে দল থেকে বহিষ্কারেরও ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু কার্যত নির্বাচনী বৈতরণি পার হওয়ার জন্য ব্যাপক সন্ত্রাসের অভিযোগ উঠল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দলের বিরুদ্ধে।

এদিকে বুথফেরত জরিপে তৃণমূলের বিপুল ভোটে জয়ের ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে। রোববার ভোট গ্রহণ শেষে সমীক্ষা সংস্থা সি-ভোটারের বুথফেরত সমীক্ষায় বলা হয়েছে—তৃণমূল ৫৮ শতাংশ ভোট পেতে পারে। এ ছাড়া বিজেপি ২৮, বাম ফ্রন্ট ৫, কংগ্রেস ৭ এবং অন্যরা ২ শতাংশ ভোট পেতে পারে।

ওয়ার্ডের হিসাবে পৌর করপোরেশনের ১৪৪টি ওয়ার্ডের মধ্যে তৃণমূল পেতে পারে ১৩১টি, বিজেপি ১৩টি। অপর দিকে বাম দল, কংগ্রেসসহ অন্যরা কোনো আসন পাচ্ছে না, এমনটাই ইঙ্গিত দিয়েছে বুথফেরত সমীক্ষা।

সর্বশেষ ২০১৫ সালে নির্বাচনে তৃণমূল ১১৪, বিজেপি ৭, বাম ফ্রন্ট ১৫, কংগ্রেস ৫টি আসন এবং অন্যরা ৩টি আসনে জিতেছিল। আগামী মঙ্গলবার পৌর ভোটের ফলাফল ঘোষণা হওয়ার কথা রয়েছে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন