বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

অরবিন্দ কেজরিওয়াল এমন সময়ে করোনায় আক্রান্ত হলেন, যখন দিল্লিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ আবারও বাড়তে শুরু করেছে। গতকাল সোমবার সেখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪ হাজার ৯৯ জন। দিল্লির স্বাস্থ্য বিভাগের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গতকাল সেখানে করোনা পরীক্ষার বিপরীতে সংক্রমণের হার ৬ দশমিক ৪৬। এ ছাড়া কোভিড-১৯-এ আক্রান্ত ও আক্রান্ত সন্দেহে ৬ হাজার ২৮৮ জন বাড়িতে আইসোলেশনে রয়েছেন।

সংক্রমণ ছাড়া মৃত্যুও বাড়ছে দিল্লিতে। গতকাল সেখানে মৃত্যুর রেকর্ড হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, করোনার নতুন ধরন অমিক্রনের কারণে দিল্লিতে সংক্রমণ বাড়ছে।

এ পরিস্থিতি সামাল দিতে গার্ডেড রেসপন্স অ্যাকশন প্ল্যান (জিআরএপি) হাতে নেওয়া হয়েছে। এই পরিকল্পনা অনুসারে, এলাকাভিত্তিক সংক্রমণের হার, সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা ও হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহের ওপর ভিত্তি করে এলাকাগুলোকে বিভিন্ন জোনে ভাগ করা হবে।

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের খবরে বলা হয়েছে, সংক্রমণের হারের ওপর নির্ভর করে এলাকাগুলোকে হলুদ, কমলা ও লাল জোন হিসেবে চিহ্নিত করা হবে। এরপর সেই অনুসারে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। এ ছাড়া বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে কী ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া হবে, সে জন্য দিল্লি ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট অথরিটি আজ মঙ্গলবার বৈঠকে বসবে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন