বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

ভিডিওতে দেখা যায়, চশমা ছিনিয়ে নেওয়ার পর বানরটি একটি লোহার খাঁচার ওপর বসে আছে। যাঁর চশমা ছিনিয়ে নিয়েছে, তিনি দাঁড়িয়ে আছেন ওই খাঁচার নিচেই। নানাভাবে তিনি চেষ্টা করছেন চশমাটি ফেরত পেতে, কিন্তু বানরটি তা ফেরত দিতে নারাজ। এরপর বানরের নকল করার প্রবৃত্তিকেই কৌশল হিসেবে বেছে নেন ওই ব্যক্তি। তিনি একটি জুসের প্যাকেট বাড়িয়ে দেন বানরের দিকে। প্রাণীটি সেটি নেওয়ার চেষ্টা করলে ওই ব্যক্তি প্রত্যাখ্যান করেন। এরপর বানরটি বুঝতে পারে, ওই ব্যক্তি জুসের বিনিময়ে চশমা চাচ্ছেন। সে এবার চশমা ফেরত দেওয়ার চেষ্টা করে। তবে সেটি লোহার খাঁচার ফাঁকে আটকে যায়। এরপর সেই চশমা নিচের দিকে ঠেলে বানরটি নিশ্চিত করে, যেন এর মালিক নাগাল পান।

রুপিন শর্মা ভিডিওটির ক্যাপশনে লিখেছেন, ‘বুদ্ধিমান। এক হাতে দাও, আরেক হাতে নাও।’ ভিডিওটি ১৪ হাজারের বেশিবার দেখা হয়েছে। অনেকে এটি শেয়ার করেছেন, মন্তব্যও লিখেছেন।

টুইটারে এক ব্যবহারকারী লিখেছেন, বারানসি, মথুরা আর বৃন্দাবনে অসংখ্য বানর আছে। সেখানে এই প্রাণীগুলোর সঙ্গে বিনিময়ের এটাই সবচেয়ে ভালো কৌশল। আরেক ব্যবহারকারী লিখেছেন, এ ঘটনা নিশ্চিতভাবেই উত্তর প্রদেশের বৃন্দাবনের। সেখানকার বানরেরা খাওয়ার জন্য কিছু না পেলে ছিনিয়ে নেওয়া জিনিস ফেরত দেয় না। তৃতীয় আরেক ব্যবহারকারী লিখেছেন, ঘটনাটি হিমাচল প্রদেশের শিমলার প্রাচীন জাখু মন্দিরের হতে পারে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন