default-image

করোনাভাইরাস প্রতিরোধী ব্যাগভর্তি টিকা চুরি করে পালিয়েছিলেন এক চোর। পরে ভুল বুঝতে পেরে সেই টিকা ফিরিয়ে দেন তিনি। এ ঘটনার জন্য তিনি দুঃখ প্রকাশ করে একটি নোটও রেখে গেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার ভারতের হরিয়ানা রাজ্যের জিন্দ শহরে এ ঘটনা ঘটে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির খবরে বলা হয়, জিন্দ জেনারেল হাসপাতালের গুদাম থেকে টিকাভর্তি ব্যাগটি নিয়ে পালিয়েছিলেন ওই চোর। ব্যাগের ভেতরে ছিল ১ হাজার ৭০০ ডোজ টিকা। সেই টিকা তিনি ফেরত দেন এবং সঙ্গে একটি নোট রেখে যান। তিনি লেখেন, ব্যাগের ভেতরে টিকা ছিল, সেটি তিনি জানতেন না।

বিজ্ঞাপন

ব্যাগটির ভেতরে কোভিশিল্ড ও কোভ্যাক্সিন টিকা ছিল। টিকাগুলো ফিরিয়ে দেওয়ার সময় ব্যাগের সঙ্গে একটি নোট যুক্ত করে দেন ওই চোর। নোটে তিনি লেখেন, ‘দুঃখিত, ব্যাগের ভেতরে করোনার ওষুধ ছিল, সেটি আমি বুঝতে পারিনি।’

দুপুরের দিকে পুলিশ স্টেশনের বাইরে একটি চায়ের দোকানে এক ব্যক্তির কাছে টিকার ব্যাগটি দেন অভিযুক্ত চোর। ওই ব্যক্তিকে তিনি ফুড ডেলিভারি ম্যান হিসেবে পরিচয় দিয়ে বলেন, পুলিশের অর্ডার করা খাবার নিয়ে এসেছেন তিনি। অন্য কাজের ব্যস্ততা দেখিয়ে ওই ব্যক্তিকে অনুরোধ করেন, ব্যাগটি থানায় পৌঁছে দিতে।

এ চোরকে শনাক্ত করা যায়নি। তাঁকে খুঁজছে হরিয়ানার পুলিশ। টিকা ফেরত দিয়ে গেলেও চুরির অভিযোগে তাঁর বিরুদ্ধে একটি মামলা করা হয়েছে। পুলিশ ধারণা করছে, করোনা চিকিৎসার ওষুধ রেমডেসিভির মনে করে টিকার ব্যাগটি চুরি করেছিলেন ওই চোর।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন