ভারতের প্রতিবেশী প্রকল্প নিয়ে মন্ত্রিগোষ্ঠীর প্রথম বৈঠক

ভারতের জাতীয় পতাকা
ছবি: এএফপি

ভারতের ‘প্রতিবেশী প্রথম’ নীতির সার্থক ও দ্রুত রূপায়ণের জন্য আন্তমন্ত্রণালয় কো–অর্ডিনেশন গোষ্ঠীর প্রথম বৈঠক অনুষ্ঠিত হলো মঙ্গলবার। নয়াদিল্লিতে এই বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন পররাষ্ট্রসচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা। প্রতিবেশী দেশগুলোর জন্য যেসব কর্মসূচি গৃহীত হয়েছে, সেগুলোর রূপায়ণ ও উন্নয়নের মূলধারায় নিয়ে আসার বিষয়ে এই বৈঠকে আলোচনা হয়।

সন্ধ্যায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে এ খবর জানিয়ে বলা হয়, প্রতিবেশীদের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কজনিত বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত এই বৈঠকে নেওয়া হয়েছে। কিন্তু সেসব সিদ্ধান্ত কী, সে বিষয়ে কিছু বলা হয়নি।

‘প্রতিবেশী প্রথম’ নীতি রূপায়ণসংক্রান্ত এই বৈঠকে সব প্রতিবেশীকে নিয়েই আলোচনা হয়। বাংলাদেশ, ভুটান, শ্রীলঙ্কা, নেপাল, মালদ্বীপ, আফগানিস্তান ছাড়াও পাকিস্তান ও মিয়ানমার ছিল আলোচনার কেন্দ্রে। লক্ষণীয়, পাকিস্তানে পালাবদলের পরদিনই এই বৈঠক ডাকলেন পররাষ্ট্রসচিব শ্রিংলা, যিনি এই মাসের শেষে অবসর নিচ্ছেন।

এই বৈঠকে যোগ দেন স্বরাষ্ট্র, অর্থ, বাণিজ্য, মৎস্য মন্ত্রণালয়ের সচিবেরা। তাঁরা ছাড়াও যোগ দেন প্রতিরক্ষা, রেল, কৃষি, তথ্য সম্প্রচার ও উপভোক্তা মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিরা।

সীমান্তরক্ষী বাহিনী এবং জাতীয় নিরাপত্তার সঙ্গে যুক্ত বিভাগীয় কর্মকর্তারাও বৈঠকে যোগ দেন। উদ্দেশ্য একটাই, প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্পর্কের ক্রমোন্নতি ঘটানো, যাতে পারস্পরিক আস্থা ও ভরসা বাড়ে।