বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও বহুজাতিক ওষুধ কোম্পানি অ্যাস্ট্রাজেনেকা উদ্ভাবিত করোনার টিকা ভারতের পুনের সেরাম ইনস্টিটিউটে উৎপাদিত হচ্ছে।

কোভিশিল্ড নামের এই টিকা চলতি বছরের প্রথম দিকে বাংলাদেশেও এসেছিল। পরে ভারতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ শুরু হলে টিকা রপ্তানি বন্ধ করে দেয় তারা।

গত মার্চের মাঝামাঝি থেকে দেশে উৎপাদিত সব টিকা নিজেদের জনগণকে দেয় ভারত সরকার। এখন পর্যন্ত দেশটিতে ৭২ কোটির বেশি ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে, এর মধ্যে কোভিশিল্ড টিকাই বেশি।

সম্প্রতি যুক্তরাজ্য সরকার পর্যটকদের জন্য যে নিয়ম করেছে, তাতে কোভিশিল্ডের দুই ডোজ টিকা নিয়ে কেউ সে দেশে গেলে তাঁকে ১০ দিন বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে থাকতে হবে। এ নিয়ে অসন্তুষ্ট ভারতের পররাষ্ট্রসচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা মঙ্গলবার নয়াদিল্লিতে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, কোভিশিল্ড টিকাকে যুক্তরাজ্যের অনুমোদন না দেওয়ার সিদ্ধান্ত বৈষম্যমূলক।

কোভিশিল্ডের দুই ডোজ টিকা নেওয়া ভারতীয়দের জন্য বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিন মানার নিয়ম বন্ধ করার অনুরোধ জানান তিনি। বর্তমান নিয়মে যুক্তরাজ্যে ভ্রমণ করতে হলে ভারতীয় নাগরিকদের কোয়ারেন্টিন পালন ছাড়াও বাইরে চলাফেরা করার আগে তাঁদের করোনা পরীক্ষা করাতে হবে।

ভারত থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন