করোনাভাইরাস
করোনাভাইরাসপ্রতীকী ছবি

করোনাভাইরাসের রেকর্ড সংক্রমণে রাশ টানতে ভারতের দক্ষিণাঞ্চলীয় কর্ণাটক রাজ্যের রাজধানী বেঙ্গালুরুসহ সাতটি শহরে রাত্রিকালীন কারফিউ জারি করেছে রাজ্য সরকার। আজ বৃহস্পতিবার রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, শনিবার থেকে এ কারফিউ ১০ দিনের জন্য কার্যকর হবে। চলবে প্রতিদিন রাত ১০টা থেকে পরদিন ভোর ৫টা পর্যন্ত।

এনডিটিভির খবরে বলা হয়েছে, রাজধানী বেঙ্গালুরু ছাড়াও কারফিউ জারি হওয়া কর্ণাটকের আরও ছয়টি শহর হলো তুমাকুরু, ম্যাঙ্গালুরু, কালাবুরাগি, বিদার, মাইসুরু ও মনিপাল। ২০ এপ্রিল পর্যন্ত এ সাত শহরে রাতের বেলা কারফিউ চলবে। তবে কারফিউ চললেও জরুরি সেবা চালু থাকবে বলে জানিয়েছেন কর্ণাটকের মুখ্যমন্ত্রী বি এস ইয়েদুরাপ্পা।

কর্ণাটক, মহারাষ্ট্র, ছত্তিশগড়, উত্তর প্রদেশ, দিল্লি, মধ্যপ্রদেশ, তামিলনাড়ু, গুজরাট, কেরালা ও পাঞ্জাব—ভারতের এই ১০ রাজ্যে করোনা সংক্রমণ হু হু করে বাড়ছে। আজ দেশটির কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এক দিনে ভারতে রেকর্ড ১ লাখ ২৬ হাজার মানুষের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ৮৪ দশমিক ২১ শতাংশ কোভিড–১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছে এ ১০ রাজ্যে।

বিজ্ঞাপন

এর আগে সংক্রমণের লাগাম টানতে মুম্বাই, পুনেসহ মহারাষ্ট্রের কয়েকটি শহরে রাতের বেলায় কারফিউ জারি করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার থেকে রাত্রিকালীন কারফিউ জারি হয়েছে দিল্লিতেও।

করোনার প্রথম ঢেউয়ের সময় ভারতজুড়ে লকডাউন জারি হয়েছিল। এই সময় দেশটিতে অর্থনৈতিক চাপের সৃষ্টি হয়। তাই এবার ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার দ্বিতীয়বারের মতো দেশজুড়ে লকডাউনের বিপক্ষে। তবে কোনো রাজ্য সরকার চাইলে স্থানীয়ভাবে বিধিনিষেধ আরোপ করতে পারবে বলে জানানো হয়েছে।

মন্তব্য করুন