default-image

বিজেপিকে তীব্রভাবে আক্রমণ করলেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। একই সঙ্গে তিনি বিজেপিকে চ্যালেঞ্জও জানালেন।

গতকাল রোববার মুম্বাইয়ে শিবসেনার বার্ষিক দশেরা অনুষ্ঠানে দেওয়া বক্তৃতায় উদ্ধব ঠাকরে বিজেপিকে আক্রমণ করেন। আজ সোমবার টাইমস অব ইন্ডিয়া অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞাপন

বিজেপিকে উদ্দেশ করে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘যেদিন মুখ্যমন্ত্রী হয়েছি, সেদিন থেকেই আমার সরকার ফেলে দেওয়ার কথা শুনে আসছি। এখন পর্যন্ত তা হয়নি। যদি সাহস থাকে, তবে তা করে দেখান।’

উদ্ধব ঠাকরে অভিযোগ করে বলেন, দেশ যখন করোনার মহামারিতে আক্রান্ত, তখন একটা অদ্ভুত ব্যাপার ঘটছে। এই মহামারিকালে কেন্দ্রের লক্ষ্য বিজেপির শাসন নেই—এমন রাজ্যের সরকার উৎখাত করা।

মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ক্ষমতার প্রতি বিজেপির সীমাহীন লোভের কারণে দেশ এখন বিশৃঙ্খলার শেষ প্রান্তে পৌঁছে গেছে। বিজেপি তাদের অংশীদারদের ধোঁকা দিচ্ছে।

উদ্ধব ঠাকরে শিবসেনার প্রধান। গত বছর এনসিপি ও কংগ্রেসের সঙ্গে শিবসেনা জোট গড়ে মহারাষ্ট্রে সরকার গঠন করে। এই জোট সরকারের মুখ্যমন্ত্রী হন উদ্ধব ঠাকরে।

বিজেপির সঙ্গে শিবসেনার বহুদিন ধরে বন্ধুত্ব ছিল। তবে এখন তাদের পথ ভিন্ন।

গত বছর মহারাষ্ট্রের বিধানসভা নির্বাচনে একসঙ্গে লড়েছিল শিবসেনা-বিজেপি। কিন্তু ফল প্রকাশের পর মুখ্যমন্ত্রীর পদ নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে মতবিরোধ হয়।

ওই মতবিরোধের জেরে কেন্দ্রে বিজেপির নেতৃত্বাধীন এনডিএ জোটের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে শিবসেনা। আর মহারাষ্ট্রে এনসিপি ও কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে সরকার গড়ে শিবসেনা।

আগামী ২৮ নভেম্বর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে উদ্ধব ঠাকরের এক বছর পূর্ণ হবে।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0