'মোদি স্যারের অনুপ্রেরণায়' বিজেপিতে ভারতীয় ব্যাডমিন্টন তারকা

বিজ্ঞাপন
default-image

ভারতের ক্রীড়াঙ্গনে অন্যতম জনপ্রিয় মুখ সাইনা নেহওয়াল। বলিউডে তাঁর জীবনী অবলম্বনে সিনেমাও নির্মিত হচ্ছে। সাইনার এই জনপ্রিয়তা এবার কাজে লাগাতে চলেছে দেশটির ক্ষমতাসীন দল ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)। দিল্লির বিধানসভা নির্বাচনের ১০ দিন আগে নরেন্দ্র মোদির দলে যোগ দিয়েছেন এই ব্যাডমিন্টন তারকা।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আজ বুধবার আনুষ্ঠানিকভাবে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন সাইনা। ৮ ফেব্রুয়ারি দিল্লির বিধানসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে তিনি বিজেপির প্রচারে অংশ নিতে পারেন বলেও শোনা যাচ্ছে।

হঠাৎ বিজেপিতে যোগ দেওয়ার কারণ জানাতে গিয়ে সাইনা বলেছেন, স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী মোদির থেকে অনুপ্রাণিত হয়েই তিনি বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। বিজেপির দলীয় স্কার্ফ গলায় ঝুলিয়ে বিশ্বের সাবেক এক নম্বর ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় সাইনা বলেছেন, ‘আমি দেশের হয়ে অনেক পদক জিতেছি। আমি নিজে কঠোর পরিশ্রম করি এবং যাঁরা কঠোর পরিশ্রম করেন, তাঁদের পছন্দ করি। আমি দেখেছি, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দেশের জন্য কত কিছু করেছেন। আমি নরেন্দ্র স্যারের কাছ থেকে অনেক অনুপ্রেরণা পাই। তাঁর সঙ্গে মিলে আমি দেশের জন্য কাজ করতে চাই।’

সাইনার বিজেপিতে যোগ দেওয়ার বিষয়টি অবশ্য একেবারে অপ্রত্যাশিত নয়। এর আগে তাঁর বেশ কয়েকটি টুইটে মোদির প্রতি সমর্থন প্রকাশ পেয়েছিল। নারীর ক্ষমতায়নে মোদির ভূমিকার জন্য তাঁকে অভিনন্দনও জানিয়েছিলেন সাইনা। সাইনার সঙ্গে তাঁর বড় বোনও বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন।

মেয়ের এমন সিদ্ধান্তে বেজায় খুশি সাইনার মা উষা রানি। তিনি বলেছেন, ‘খেলায় যেমন ভালো করেছে, সাইনা রাজনীতিতেও তেমন ভালো করবে। বিজেপি দেশের ভালোর জন্য কাজ করছে। সাইনা খুবই পরিশ্রমী। রাজনীতির ময়দানেও ও কঠোর পরিশ্রম করবে।’

সাইনার আগে বেশ কয়েকজন ভারতীয় খেলোয়াড় বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। সাবেক ভারতীয় ক্রিকেটার গৌতম গম্ভীর তো সর্বশেষ লোকসভা নির্বাচনে সাংসদ হিসেবেই নির্বাচিত হয়েছেন। এ ছাড়া রেসলার ববিতা ফোগাত ও সুশীল কুমারও বিজেপিতে যোগ দেন। জাতীয় হকি দলের সাবেক অধিনায়ক সন্দীপ সিং হরিয়ানা বিধানসভা নির্বাচনে জিতে মন্ত্রী হয়েছেন।

২৪টি আন্তর্জাতিক পদক জেতা সাইনা ভারতের অন্যতম জনপ্রিয় ক্রীড়া তারকা। এরই মধ্যে ভারতীয় ক্রীড়াবিদদের জন্য সর্বোচ্চ পদক রাজীব গান্ধী খেলরত্ন ও অর্জুন পদক পেয়েছেন ২৯ বছর বয়সী এই ব্যাডমিন্টন তারকা। এ ছাড়া ২০১৬ সালে ভারতের তৃতীয় সর্বোচ্চ বেসামরিক পদক পদ্মভূষণেও ভূষিত হয়েছেন তিনি। ২০১২ সালের লন্ডন অলিম্পিকে ব্যাডমিন্টনে ব্রোঞ্জ জেতেন তিনি। ২০১৫ সালে বিশ্বের এক নম্বর ব্যাডমিন্টন খেলোয়াড় হন তিনি।

বিজ্ঞাপন
মন্তব্য পড়ুন 0
বিজ্ঞাপন