default-image

পাকিস্তানে করোনাভাইরাসের সংক্রমণে আজ বুধবার  ১৩৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। দেশটিতে গত বছরের জুনের পর এটিই একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড। গতকাল মঙ্গলবার দেশটিতে মারা যান ১১৮ জন।

পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম ডন-এর অনলাইনে এক খবরে জানানো হয়, গত বছরের ২০ জুন পাকিস্তানে করোনায় ১৫৩ জন মারা যান, যা দেশটিতে করোনা মহামারি শুরুর পর এ পর্যন্ত একদিনে মৃত্যুর সর্বোচ্চ রেকর্ড। এর পরদিন ২১ জুন দেশটিতে মারা যান ১৪৮ জন। এরপর পাকিস্তানে করোনায় দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা গত সোমবার পর্যন্ত ১১৮ জনের কম ছিল।

করোনার যুক্তরাজ্যের ধরন বিস্তারের কারণে পাকিস্তানে সংক্রমণ বাড়ছে। দেশটির পরিকল্পনা ও উন্নয়নমন্ত্রী আসাদ উমর সতর্ক করে বলেছেন, দেশের দক্ষিণাঞ্চলে করোনার যুক্তরাজ্যের ধরন ছড়িয়ে পড়েছে। ভাইরাস প্রতিরোধে পবিত্র ঈদুল ফিতরের পর ৫০ থেকে ৬০ বছর বয়সী ব্যক্তিদের টিকা দেওয়া শুরু হবে বলে তিনি জানান।

বিজ্ঞাপন

পাকিস্তানের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের তথ্যানুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে ৪৮ হাজার ৯২টি নমুনা পরীক্ষা করে ৪ হাজার ৬৮১ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশটিতে করোনা সংক্রমিত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে ৭ লাখ ৩৪ হাজার ৪২৩ জন হয়েছে। এর মধ্যে মারা গেছেন ১৫ হাজার ৭৫৪ জন।

সরকারি তথ্যানুসারে, ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত পাকিস্তানজুড়ে করোনা রোগীদের চিকিৎসায় ৫০৩টি ভেন্টিলেটর ব্যবহার হয়েছে। এ মুহূর্তে পাঁচ হাজারের বেশি আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পাকিস্তান থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন